Download Free FREE High-quality Joomla! Designs • Premium Joomla 3 Templates BIGtheme.net

চুয়াডাঙ্গা বোয়ালিয়া গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু মুসা ও দোস্তের আ.লতিফ মোল্লার ইন্তেকাল

 

বেগমপুর প্রতিনিধি: চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার নেহালপুর ইউনিয়নের বোয়ালিয়া গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু মুসা আল মামুন ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নাল্লিলাহি……………রাজেউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিলো ৭০ বছর। গতপরশু মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে নিজ বাড়িতে ইন্তেকাল করেন। তিনি দীর্ঘদিন ধরে বাধ্যর্ক জনিত রোগে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ৩ ছেলে ৪ মেয়েসহ বহুগুণগ্রাহী রেখে গেছেন। গতকাল বুধবার বেলা ১১টার দিকে স্থানীয় ইক্ষু ক্রয় সেন্টার চত্বরে রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় গার্ড অব অনার প্রদান করেছে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইনের পুলিশের একটি চৌকস দল। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সদর উপজেলা নির্বাহী মৃনাল কান্তি দে, চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ওসি তদন্ত গোলাম মোহাম্মদ, চুয়াডাঙ্গা জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আবু হোসেন, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরুল ইসলাম মালিক, সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আ.শু বাঙ্গালী, বেগমপুর ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মুক্তার হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান আলী হোসেন জোয়ার্দ্দার, চুয়াডাঙ্গা জেলা জাপার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শাহাবুদ্দীন বিশ্বাস, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সামসুল হক সহ জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ের মুক্তিযোদ্ধা সামাজিক ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ। পরে জানাজা শেষে আবু মুসার স্থানীয় গোরস্তানে দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে।

একই দিন চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার নেহালপুর ইউনিয়নের দোস্ত বসতিপাড়ার আ. লতিফ ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না…………রাজেউন)। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ৫ ছেলে ৪ মেয়ে সহ বহুগুণগ্রাহী রেখে গেছেন। মৃত হাজি মোহাম্মদ আলী মোল্লার ছেলে আ. লতিফ মঙ্গলবার রাত ১২ টার দিকে হৃদযন্ত্র ক্রিয়া বন্ধ হয়ে নিজ বাড়িতে ইন্তেকাল করেন। গতকাল বুধবার জোহর বাদ বাড়ি সংলগ্ন মাঠে জানাজার নামাজ শেষে স্থানীয় গোরস্তানে দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। আবু মুসা আল মামুন ও আ. লতিফের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে শোকসপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য চুয়াডাঙ্গা জেলা আ.লীগের সহসভাপতি হাজি আলী আজগার টগর এমপি। তিনি সকাল সাড়ে ৯টার দিকে আবু মুছা ও আ.লতিবের পরিবারের প্রতি সমাবেদনা জানাতে দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে তাদের বাড়িতে যান। এ সময় সংসদ সদস্যের সাথে ছিলেন- চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুল হক বিশ্বাস, দামুড়হুদা উপজেলা আ.লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউপি চেয়ারম্যান জাকারিয়া আলম, সদর উপজেলা আ.লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান টিপু, দর্শনা পৌর আ.লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা শহিদুল ইসলাম, বেগমপুর ইউনিয়ন আ.লীগের সভাপতি মোবারক আলী, সাধারণ সম্পাদক হামিদুল্লাহ, তিতুদহ ইউনিয়ন আ.লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আব্দুল মতিন খোকন, আ.লীগ নেতা হাবিবুর রহমান কাজল, আব্বাস আলী, মোজাম জোয়ার্দ্দার, মতিয়ার রহমান, আব্দুল কুদ্দুস, আহসান হাবীব, শাজাহান, আসদুল, ডাক্তার রেজাউল, তিতুদহ ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি রোকন উদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক রাশেদ রেজা, বেগমপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহীন আহম্মেদ, যুবলীগ নেতা আনিচুর রহমান প্রমুখ।

 


আরো দেখুন

প্যারাডাইস কেলেঙ্কারিতে মিন্টু পরিবারসহ অনেকের নাম

স্টাফ রিপোর্টার: বহুল আলোচিত প্যারাডাইস পেপার্সে বাংলাদেশিদের নাম উঠে এসেছে। ব্যবসায়ী আব্দুল আউয়াল মিন্টুর পরিবারের …

Loading Facebook Comments ...