ইজিবাইকের চাকায় ওড়না জড়িয়ে মুন্সিগঞ্জে গৃহবধূর মর্মান্তিক মৃত্যু

স্বামীর বাড়ি আলমডাঙ্গার এরশাদপুরে ফিরতে পারলেন না গৃহবধূ রিমা খাতুন

আলমডাঙ্গা ব্যুরো: ইজিবাইকের চেনে ওড়না জড়িয়ে মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে আলমডাঙ্গার এরশাদপুরের অন্তঃস্বত্ত্বা গৃহবধু রিমার। গতকাল ১৭ মে দুপুরে আলমডাঙ্গার মুন্সিগঞ্জ রেলগেটের নিকট এ মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে। তাকে দ্রুত চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়েছে বলে পারিবারিকসূত্র জানিয়েছে।
জানা গেছে, আলমডাঙ্গা পৌর এলাকার এরশাদপুর গ্রামের রশিদুল ইসলাম ভোলার সাথে বিয়ে হয়েছিল একই উপজেলার বড় গাংনী গ্রামের অহিদুল ইসলামের মেয়ে রিমা খাতুনের। এক সপ্তাহ আগে রিমা খাতুন (২৮) তাদের ৬ বছরের মেয়ে লামিয়াকে নিয়ে বাপের বাড়ি বেড়াতে যান। গতকাল বুধবার বেলা ১টার দিকে তারা আলমডাঙ্গার এরশাদপুরে ফেরার উদ্দেশে মুন্সিগঞ্জ হাসপাতাল মোড় থেকে একটি ইজিবাইকে ওঠেন। রিমা খাতুনের ওড়না ইজিবাইকের চেনে জড়িয়ে যায়। সে সময় গলায় ফাঁস লেগে তার নাক-মুখ দিয়ে রক্ত বের হতে থাকে। দ্রুত উদ্ধার করে মুন্সিগঞ্জের একটি স্থানীয় ক্লিনিকে প্রথমে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসা দেয়া সম্ভব না হলে নেয়া হয় চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে। সেখানে চিকিৎসার এক পর্যায়ে বেলা ৩টার দিকে তার মৃত্যু ঘটে। নিহত গৃহবধূ রিমা ৩ মাসের অন্তঃস্বত্ত্বা ছিলো বলে তার পরিবারের লোকজন জানিয়েছেন। গতকাল বাদ মাগরিব গ্রামের গোরস্তানে গৃহবধুর লাশ দাফন করা হয়েছে।
এলাকাসূত্রে জানা যায়, মাত্র ৩ মাস আগে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হন রিমা খাতুনের বাবা। বাড়ি থেকে মাঠে যাওয়ার উদ্দেশে বের হলে দ্রুতগামি ট্রাক তাকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু ঘটে।
এদিকে, এ মর্মান্তিক মৃত্যুর সংবাদ গৃহবধুর শ্বশুরবাড়ি ও বাপের বাড়ি পৌঁছুলে শোকের মাতম ওঠে। কান্নায় ভারি হয়ে ওঠে বাড়ির পরিবেশ। এলাকাজুড়ে সৃষ্টি হয় শোকাবহ পরিবেশের। মাত্র ৩ বছরের শিশুকন্যা লামিয়া নিজের চোখে মাকে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়তে দেখে। তাকে সান্ত্বনা দেয়ার ভাষা খুঁজে পাচ্ছেন না কেউ।


আরো দেখুন

খোশ আমদেদ মাহে রমজান

প্রফেসর ড. মুহাম্মদ ইউসুফ আলী: পবিত্র মাহে রমজানের রহমত দশকের আজ চতুর্থ দিন। রমজান মাস …

Loading Facebook Comments ...