তৈরি হচ্ছে ১০ লাখ করোনার টিকা

মানবদেহে প্রয়োগ আগামী সপ্তাহে

 অনলাইন ডেস্ক: আগামী সপ্তাহেই মানবদেহে করোনাভাইরাসের টিকা প্রয়োগ করবে যুক্তরাজ্যের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞানীরা। সেপ্টেম্বরে করোনাভাইরাসের টিকা বাজারে ছাড়ার ঘোষণা দিলেও এর আগেই পরীক্ষামূলকভাবে এটি প্রয়োগ করা হবে। যাদের দেহে এই টিকা প্রয়োগ করা হবে তাদেরকেও প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এ পরীক্ষায় যদি ভালো ফল আসে তাহলে প্রাথমিকভাবে সেগুলো বাজারে ছাড়া হবে। পরীক্ষার আগেই ঝুঁকি নিয়ে এই টিকার তিন লিটারের ডোজ তৈরি করে রাখা হচ্ছে। করোনাভাইরাসের এই টিকাটি সফল হওয়ার ব্যাপারে বিজ্ঞানীরা ৮০ শতাংশ আশাবাদী। সে কারণে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত তারা ১০ লাখ ডোজ উৎপাদন করবে। অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদলের প্রধান অধ্যাপক অ্যাড্রিয়ান হিল দ্য ডেইলি মেইলকে এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, আগামী সপ্তাহেই আমরা মানবদেহে করোনার টিকা প্রয়োগ করবো। অবশ্য তার আগেই আমরা উৎপাদন শুরু করেছি। প্রথমে আমরা ৩ লিটারের ডোজ তৈরি করবো। এরপর ৫০ লিটার, ১০০ লিটার, ২০০ লিটার এমনকী ২০০০ লিটার উৎপাদন করা হবে।  তিনি জানান, প্রথম পর্যায়ে ১৮-৫৫ বছর বয়সী ৫১০ জন স্বেচ্ছাসেবী আগামী সপ্তাহে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন নিতে সম্মত হয়েছেন। হিল ও তার সহযোগী বিজ্ঞানীরা শিম্পাঞ্জির শরীরে সার্স সিওভি-২ ভাইরাস ইঞ্জেকশন দিয়ে শিম্পাঞ্জির শরীরে ভাইরাসের বিরুদ্ধে অ্যান্টিবডি তৈরি করেন। টিকার ডোজ তৈরির ব্যাপারে ইতিমধ্যে যুক্তরাজ্যের তিনটি ও বিভিন্ন দেশের বেশ কয়েকটি উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়। পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয়টির বিশেষজ্ঞ ও গবেষকরা নিরলসভাবে চেষ্টা করে যাচ্ছে টিকাটির উন্নয়নে। এই দলে এমন বিজ্ঞানী ও গবেষক রয়েছেন যারা মার্স ভাইরাসের টিকা তৈরি করেছিলেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More