মেহেরপুরের আম্পানের প্রভাব

মেহেরপুর প্রতিনিধি : সারা রাতেই ছিলো ঝড়ের প্রভাব। মধ্যরাত থেকে মেহেরপুরে শুরু হয় বৃষ্টি। শেষরাতের দিকে বয়ে যায় ঝড়। মাঝে মাঝেই গুড়ি গুড়ি বৃষ্টি হচ্ছে। সাথে বইছে দমকা হাওয়া। আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইট থেকে জানা গেছে, পাশর্^বর্তী দেশের ভারতের মুর্শিদাবাদ, মেদিনিপুর ৭০ থেকে ১১০ কিঃ মিঃ বেগে ঘুর্নিঝড়টি আঘাত হানতে পারে। তার প্রভাব থাকবে মেহেরপুরে। এ অঞ্চলের উপর দিয়ে একই গতিতে ঝড় হাওয়া বাইয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। এছাড়াও খুলনা বিভাগের উপকুল অঞ্চলে ঝড়টি আঘাত হানার ফলে তার প্রভাব থাকবে এ অঞ্চলের উপর।
ভারতের জি ২৪ ঘন্টার চ্যানেলের সূত্র থেকে জানা যায়, রাতেই ঝড়টি কলকাতায় আঘাত হানার পরই নদীয়া জেলার উপর দিয়ে ৭০ থেকে ৯০ কিঃ মিঃ বেগে আঘাত হানবে। তারপরই পশ্চিবঙ্গের উপর বাংলাদেশ প্রবেশ করবে। সেক্ষেত্রে নদীয়ার পাশের জেলা মেহেরপুর। বিশেষজ্ঞদের ধারনা এটি মেহেরপুরের উপর একই গতিতে আঘাত হানতে পারে। সেক্ষেত্রে এ জেলার ব্যাপক ক্ষতি হবার সম্ভাবনা রয়েছে। ভেঙ্গে পড়তে পারে কাঁচা বাড়ি ঘর ও গাছপালা। সেক্ষেত্রে আম লিচুরও ব্যাপক ক্ষতি হবার সম্ভাবনা রয়েছে।
জেলা প্রশাসক আতাউল গনি জানান, গতকাল একটি প্রস্তুতি সভা করা হয়েছে। সেখান থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের সব ধরনের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। মানুষকে শতর্ক করতে তাদের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে। এছাড়াও ঘুর্নিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ হলে নগদ অর্থ, ত্রানসামগ্রী ও ঢেউটিন প্রস্তুত রাখা হয়েছে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More