আজ চূড়ান্ত হতে পারে ১০ জনের নাম

স্টাফ রিপোর্টার: নতুন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) ও অন্যান্য কমিশনার নিয়োগের লক্ষ্যে যোগ্য ব্যক্তিদের নাম চূড়ান্ত করতে গঠিত সার্চ কমিটি আজ শনিবার বৈঠকে বসতে যাচ্ছে। বেলা ১১টায় সপ্তমবারের মতো এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। এর আগে অনুষ্ঠিত সার্চ কমিটির ছয়টি বৈঠকের চারটি ছিলো বিশিষ্টজনদের সঙ্গে। প্রথম, দ্বিতীয় ও ষষ্ঠ বৈঠকে কমিটির সদস্যরা নিজেরা উপস্থিত ছিলেন। শনিবার বৈঠকেও শুধু কমিটির সদস্যরা থাকবেন। সেখানে ১০ জনের নামের তালিকা চূড়ান্ত করা হতে পারে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রের খবর। নতুন নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠনের লক্ষে রাষ্ট্রপতির অনুমোদনের পর গত ৫ ফেব্রুয়ারি দুপুরে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে সার্চ কমিটি ঘোষণা করা হয়। এই কমিটির প্রধান করা হয় আপিল বিভাগের বিচারপতি ওবায়দুল হাসানকে। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন হাইকোর্টের বিচারপতি এসএম কুদ্দুস জামান, বাংলাদেশের মহা হিসাব নিরীক্ষক ও নিয়ন্ত্রক মুসলিম চৌধুরী, বাংলাদেশ সরকারি কর্মকমিশনের চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইন, সাবেক নির্বাচন কমিশনার ছহুল হোসাইন ও কথা সাহিত্যিক অধ্যাপক আনোয়ারা সৈয়দ হক। পরে ৬ ফেব্রুয়ারি প্রথম বৈঠক করে দেশের ৩৯টি নিবন্ধতি রাজনৈতিক দলের কাছে চিঠি দিয়ে ইসির জন্য তাদের পছন্দের নাম ১১ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৫টার মধ্যে দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছিল সার্চ কমিটি। এ ছাড়া ইসির জন্য যোগ্য- এমন যে কেউ আবেদন করতে পারবেন বলেও বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে আহ্বান জানায় সার্চ কমিটি। পরে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ২৪ রাজনৈতিক দল, বিভিন্ন পেশাজীবী সংগঠন এবং ব্যক্তি পর্যায় থেকে মোট ৩২২ জনের আবেদন পায় সার্চ কমিটি। নামের প্রস্তাব জমা পড়ার মধ্যেই ৮ ফেব্রুয়ারি দ্বিতীয় দফায় বৈঠক করে সার্চ কমিটি। ওই বৈঠকে ইসি গঠনের বিষয়ে মতামত নিতে দেশের বিশিষ্টজনদের সঙ্গে বসার সিদ্ধান্ত নেয় সার্চ কমিটি। সে অনুযায়ী বিশিষ্টজনদের আমন্ত্রণ জানানো হয়। সে অনুযায়ী, গত ১২ ফেব্রুয়ারি প্রথম দফায় বেলা সোয়া ১১টা থেকে সাড়ে ১২টা পর্যন্ত এবং দ্বিতীয় দফায় দুপুর ১টা থেকে আড়াইটা পর্যন্ত বিশিষ্টজনদের মতামত নেয় সার্চ কমিটি। বিশিষ্টজনদের মতামত নিতে পরের দিন রোববার (১৩ ফেব্রুয়ারি) বিকালেও বৈঠক হয়। দু’দিনের সভায় অধ্যাপক, গণমাধ্যমের শীর্ষ পর্যায়ের ব্যক্তি, সরকারি সাবেক কর্মকর্তা এবং সামরিক বাহিনীর সাবেক কর্মকর্তা, পেশাজীবী সংগঠনের নেতারাসহ বিভিন্ন পর্যায়ের বিশিষ্ট ব্যক্তিরা অংশ নেন। এদিকে গত ১১ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৫টা পর্যন্ত নির্ধারিত সময়সীমা শেষ হওয়ার পর যেসব নাম প্রস্তাব করা হয়েছে; তা গেলো ১৪ ফেব্রুয়ারি প্রকাশ করেছে সার্চ কমিটি। প্রকাশিত ৩২২ জনের মধ্যে প্রায় এক-তৃতীয়াংশ সাবেক আমলা। এ ছাড়া তালিকায় রয়েছেন- বিচারপতি, সশস্ত্র বাহিনীর সাবেক কর্মকর্তা, সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা, শিক্ষক, আইনজীবী, নাগরিক সংগঠনের প্রতিনিধিসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ। এদের মধ্য থেকে যোগ্য ১০ জনের নাম চূড়ান্ত করে আগামী ২৪ ফেব্রুয়ারির মধ্যে রাষ্ট্রপতির কাছে সুপারিশ পাঠাবে সার্চ কমিটি। রাষ্ট্রপতি তাদের মধ্যে থেকে একজন সিইসি ও চারজন কমিশনার চূড়ান্ত করবেন। সার্চ কমিটির কাছে জমা হওয়া নামগুলো প্রকাশ করার বিষয়টিকে ইতিবাচক হিসেবে দেখছেন অনেকেই। তারা চূড়ান্তভাবে বাছাই করা ১০ জনের তালিকা প্রকাশেরও জোর দাবি জানাচ্ছেন। কিন্তু সার্চ কমিটির সদস্যরা এ বিষয়ে এখনো সিদ্ধান্ত নিতে পারেননি। তবে আইন অনুযায়ী, এসব নাম প্রকাশে বাধা নেই বলে মনে করেন নির্বাচনসংশ্লিষ্ট বিশেষজ্ঞরা। উল্লেখ্য, এ সংক্রান্ত আইনে বাছাই হওয়া নাম প্রকাশ বা গোপন রাখার বিষয়ে কিছু বলা হয়নি। তাই এই বিষয়টি কমিটির সিদ্ধান্তের ওপর নির্ভর করছে। প্রসঙ্গত, গত ১৪ ফেব্রুয়ারি কেএম নূরুল হুদার নেতৃত্বাধীন নির্বাচন কমিশনের (ইসি) মেয়াদ শেষ হয়েছে।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More