চুয়াডাঙ্গায় নতুন শনাক্ত ২ জন : ১৫ জনের নমুনা সংগ্রহ

করোনায় দেশে আরও ২৪ জনের মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার: নোভেল করোনাভাইরাসে দেশে আরও ২৪জনের মৃত্যু হয়েছে। চুয়াডাঙ্গায় তিনদিন পর আবারও দুজন কোভিড-১৯ পজেটিভ রোগী শনাক্ত হয়েছে। গতকাল রোববার চুয়াডাঙ্গা স্বাস্থ্য বিভাগ নতুন ১৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য কুষ্টিয়া পিসিআর ল্যাবে প্রেরণ করেছে।
জানা গেছে, করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে আরও ২৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭ হাজার ৪শ ৫২ জনে। একই সময়ে নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে আরও ১ হাজার ৪৯জন। এর মধ্যদিয়ে দেশে করোনাভাইরাসে মোট আক্রান্ত রোগী শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫ লাখ ৯ হাজার ১শ ৪৮ জনে। রোববার স্বাস্থ্য অধিদফতরের এক বিজ্ঞপ্তিতে গত ২৪ ঘণ্টার এ তথ্য জানানো হয়েছে। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, দেশের সরকারি ও বেসরকারি ১শ ৬৭টি ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১২ হাজার ৬শ ৫০ জনের। এ নিয়ে মোট নমুনা পরীক্ষা করা হলো ৩১ লাখ ৭১ হাজার ৯১০টি। নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ৮ দশমিক ২৯ শতাংশ। আর মোট পরীক্ষায় এ পর্যন্ত শনাক্ত হয়েছেন ১৬ দশমিক ০৫ শতাংশ। নতুন যে ২৪ জন মারা গেছেন তাদের মধ্যে পুরুষ ১৬ এবং নারী ৮ জন। শনাক্ত বিবেচনায় মোট মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৪৬ শতাংশ। দেশে করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন আরও ১ হাজার ৪৭৩ জন। এ নিয়ে দেশে মোট সুস্থ ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ লাখ ৫১ হাজার ৯৬১ জনে। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৮ দশমিক ৭৭ শতাংশ।
এদিকে চুয়াডাঙ্গা স্বাস্থ্য বিভাগের হাতে গতকাল রোববার পূর্বের ১৪ জনের করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসে। এর মধ্যে ১২ জনের নেগেটিভ হলেও পজেটিভ হয়েছে দুজনের। নতুন শনাক্ত দুজনের মধ্যে একজনের বাড়ি জীবননগর। ওপর জন চুয়াডাঙ্গা বিজিবি হাসপাতালের। নতুন দুজনের শনাক্ত নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৬শ ৩৮ জন। সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৫শ ৫৪ জন। মারা গেছেন ৪৩ জন। গতরাতে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত আক্রান্তদের মধ্যে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ৪জন, বাড়িতে ৩৫জন ও চুয়াডাঙ্গার দুজন ঢাকায় আইসোলেশনে ছিলেন।
প্রসঙ্গত: শীতে নোভেল করোনা ভাইরাস ব্যাপকহারে সংক্রমিত হতে পারে। ফলে সকলকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য পুনঃপুনঃ অনুরোধ জানিয়ে আসছে দেশের সরকার। স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য প্রশাসনের তরফে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনাও অব্যাহত রয়েছে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More