আপন বোনকে দিয়েছেন সরকারি ঘরসহ একাধিক সুযোগ-সুবিধা

 

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার হাউলী ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুল হান্নান পটুর বিরুদ্ধে স্বজনপ্রীতির অভিযোগ উঠেছে। তিনি সরকারি নিয়মনীতিকে উপক্ষো করে তার আপন বোন রাশিদা খাতুনের নামে অনৈতিকভাবে সরকারিভাবে দেয়া ঘর থেকে শুরু করে ভিজিডি এবং জিআর, (মাসিক ১০ কেজি করে চালের কার্ড করে দিয়েছেন।

এলাকাবাসীরা জানান, মেম্বার পটু স্বজনপ্রীতি করে তার বোনের নামে একাধিক সরকারি সুযোগ সুবিধা করে দিয়েছেন। তার স্বামীর হোটেল ব্যবসা আছে। অথচ অনেকের কিছুই নেই। এছাড়া তার চাচাতো ভাই আলাউদ্দীন। তিনি দীর্ঘ ত্রিশ বছর ধরে চুয়াডাঙ্গায় থাকেন। তার নামেও সরকার প্রদত্ত ১০ কেজি করে চালের কার্ড করে দিয়েছেন। চাল বিতরণের সময় ট্যাগ অফিসার সাথে যায় না। ফলে মেম্বার তার ইচ্ছামতো ত্রাণ কার্যক্রম শুরু করেছে। মেম্বার পটুর স্বেচ্ছাচারিতায় এলাকাবাসী অতিষ্ট হয়ে উঠেছে। বিভিন্ন কার্ড করে দেয়ার নামে টাকা নেয়ার অভিযোগও করেছেন অনেকেই। সরেজমিন তদন্ত করলে এর সতত্যা মিলবে বলেও জানান এলাকার ভূক্তভোগী মহল। বিষয়টি খতিয়ে দেখে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের লক্ষ্যে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন এলাকার ভূক্তভোগী মহল। এ বিষয়ে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী অফিসার জানান, বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তার বিরুদ্ধে আইনগত কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More