দর্শনায় দেহব্যাবসা : নারীসহ গ্রেফতার ৮

দর্শনা অফিস: দর্শনা আজমপুর চাতাল মোড়ের মাসুম মাস্টারের বাড়িতে অনৈতিক কার্যকলাপকালে পুলিশি অভিযান চালিয়েছে। অভিযুক্ত খদ্দের ও পতিতাসহ গ্রেফতার করা হয়েছে ৮জন। অপ্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ায় ৪ জনকে দেয়া হয়েছে অভিভাবকদের হেফাজতে। বাকিদের সোপর্দ করা হতে পারে আদালতে।
অভিযোগে জানা গেছে, চুয়াডাঙ্গার আলুকদিয়া রোমেলা খাতুন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আখতারুজ্জামান মাসুমের দর্শনা আজমপুর চাতাল মোড়স্থ বাড়িটি ভাড়ায় দেয়া। দ্বিতল এ বাড়িতে কয়েকটি ইউনিট রয়েছে। একটি ইউনিটে ভাড়া নেন কোটচাঁদপুর উপজেলার সাব্দারপুর শ্রীরায়পুর বিশ্বাসপাড়ার হাফিজুর রহমান ছেলে হাসান। মহল্লাবাসীর অভিযোগ হাসানের বাসায় প্রতিদিনই বহিরাগত নারী-পুরুষের আসা-যাওয়া। গতকাল মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে এ রকম সংবাদের ভিত্তিতে দর্শনা থানার অফিসার ইনচার্জ মাহাব্বুর রহমানের নির্দেশে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযান চালান এসআই নিজাম উদ্দিন এবং এএসআই আনোয়ার হোসেন। যেমন অভিযোগ তেমনি প্রমাণ। হাসানের ঘর থেকে গ্রেফতার করা হয় হাসান আলী (৩৫), তার স্ত্রী নাহার ওরফে হাফিজা (৩২),সাব্দারপুরের ভোমরাডাঙ্গা গ্রামের আ. গাফফারের ছেলে ইয়াছিন আলী (৩২), একই গ্রামের মল্লিকর ছেলে শিমুল (২১), আজির বক্সের ছেলে মিলন ম-ল (৩৪), বেগমপুর বিলপাড়ার জমির হোসেনের মেয়ে জুথি (১৮), সাব্দারপুরের নাজমুল হোসেনের মেয়ে জান্নাতুল ফেরদৌস (১৯) ও চুয়াডাঙ্গা রেলপাড়া হাবিবুর রহমান শাহরিয়া জান্নাত ওরফে সেতু (২২)। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে অপ্রাপ্ত বয়স্ক ৪ জনকে পরিবারের অভিভাবকদের জিম্মায় দিয়েছে পুলিশ। বাকীদের আজ বুধবার আদালতে সোপর্দ করা হতে পারে বলে জানা গেছে। এদিকে আজমপুর ও মোহাম্মদপুরবাসীর অভিযোগ নির্ধারিত মূল্যের বাড়ি ভাড়ার তুলনায় দ্বিগুন টাকায় জেনে বুঝেই এ ধরণের পরিবারকে ভাড়া দিয়েছেন মাসুম মাস্টার। বেশী টাকার বিনিময়ে বাড়ি ভাড়া দিয়ে অনৈতিক কার্যকলাপ করিয়ে পরিবেশ দুষিতকারী শিক্ষকের শাস্তি দাবিও তোলা হয়।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More