নতুন ভ্যান পেয়ে খুশিতে আত্মহারা বৃদ্ধ

আফজালুল হক: চুয়াডাঙ্গায় সংযোগ কানেক্টিং পিপল ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে সেই অসুস্থ বৃদ্ধ আব্দুর রহমানের একটি নতুন ইঞ্জিনচালিত ভ্যান উপহার দিয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলা পরিষদ চত্বরে ভ্যানের চাবি ও বিক্রয়ের জন্য কিছু পোশাক হস্তান্তর করেন চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শামীম ভূইয়া। নতুন ভ্যান পেয়ে খুশিতে আত্মহারা হয়ে পড়েন বৃদ্ধ আব্দুর রহমান।

সংযোগ কানেক্টিং পিপল ফাউন্ডেশনের চুয়াডাঙ্গা টিমের সভাপতি আল রোমাজ রাজনের সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদফতরের সহকারী পরিচালক শরীয়ত উল্লাহ, চুয়াডাঙ্গা টিমের সাধারণ সম্পাদক হাফিজ আজাদ, সহ-সাধারণ সম্পাদক শোয়েব আক্তার সোহাগ, প্রোজেক্ট বিষয়ক সম্পাদক তাবির, শিক্ষা ও সমাজ কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক অঞ্জন সাহা আবির এবং সদস্য ফারাবি আসিফ ও শাহরিয়ার পলক।

উল্লেখ্য, গত ২ আগস্ট সকালে করোনার টিকা দিতে এসে অসুস্থ বৃদ্ধ আব্দুর রহমানের ঋণ করে কেনা ইঞ্জিনচালিত ভ্যানটি চুয়াডাঙ্গার সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের সামনে থেকে চুরি হয়ে যায়। উপার্জনের একমাত্র সম্বল হারিয়ে কান্নায় ভেঙে পড়েন অসুস্থ বৃদ্ধ আব্দুর রহমান। তিনি চুয়াডাঙ্গা শহরের বাগানপাড়ায় ভাড়া বাড়িতে স্ত্রী ও দুই সন্তান নিয়ে বসবাস করছেন। বড় ছেলে দশম ও ছোট ছেলে পঞ্চম শ্রেণিতে পড়াশোনা করছে।

বৃদ্ধ আব্দুর রহমান বলেন, গত ২ আগস্ট বেলা সাড়ে ১১টার দিকে জরুরি বিভাগের সামনে ভ্যানটি রেখে ভবনের দ্বিতীয় তলায় করোনার টিকা নিতে গিয়েছিলাম। সেখানে নিয়োজিত পুলিশ সদস্যও ছিলো। সেই ভরসায় ভ্যানটি রেখে যাই। প্রায় ২০ মিনিট পর টিকা দিয়ে এসে দেখি ভ্যানটি নেই। ওই ভ্যানে প্রায় ১০ হাজার টাকার পোশাক ছিলো। যা গ্রাম-গঞ্জে বিক্রি করে সংসার চলতো। ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে পাখিভ্যানটি কিনেছিলাম। সাংবাদিকদের জন্য আমি নতুন একটি ভ্যান পেলাম। এখন কিস্তির টাকা পরিশোধ করতে পারবো। সংসারও চলবে বলে সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।

সংযোগ কানেক্টিং পিপল ফাউন্ডেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির সেক্রেটারি (প্রোজেক্ট ম্যানেজমেন্ট) শাহরিয়ার সিয়াম বলেন, গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনের মাধ্যমে আব্দুর রহমানের চুরির বিষয়টি আমাদের দৃষ্টিগোচর হয়। এরপরই সংযোগ কানেক্টিং পিপল ফাউন্ডেশনের স্বাবলম্বী প্রজেক্টের আওতায় আব্দুর রহমানকে একটি ভ্যান কিনে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। এরই ধারাবাহিকতায় ভ্যানটি তাকে হস্তান্তর করা হয়।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More