লকডাউন অমান্য করে ব্যবসা । চুয়াডাঙ্গার বাজারে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান

স্টাফ রিপোর্টারঃ চুয়াডাঙ্গায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে মানুষকে ঘরমূখী করতে, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে ও লকডাউন বাস্তবায়নে প্রতিদিন মাঠে কাজ করে যাচ্ছেন জেলা প্রশাসন, সেনাবাহিনী, পুলিশ ও সাংবাদিক । সাধারণ মানুষকে সচেতন করার পাশাপাশি সরকারি নির্দেশ অমান্য করায় বিভিন্ন স্থানে ভ্রাম্যমাণ আদালত ও পরিচালনা করছেন প্রশাসন।

বুধবার জেলায় পরিচালিত মোট মোবাইল কোর্টের সংখ্যা ৯ টি, দণ্ডিত ব্যক্তির সংখ্যা ৫১ জন ও আদায়কৃত মোট জরিমানা ৮৪ হাজার ৬০০ টাকা। বুধবার বেলা সাড়ে ১১ টার দিকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খাইরুল ইসলামের নেতৃত্ত্বে জীবননগর উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করা হয় । এ সময় ১২ জনকে ৫৬ হাজার ৪০০ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। জানা যায় , সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে দোকান খুলে রাখার অপরাধে দন্ডবিধি ১৮৬০ এর ২৬৯ ধারায় হক মেশিনারি এন্ড হার্ডওয়্যারকে ৩০ হাজার ও জিহাদ স্যানিটারী’কে ১০ হাজার টাকা করে মোট ৪০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। এবং পরবর্তীতে নির্দেশ অমান্য না করার জন্য সতর্ক করার পাশাপাশি সরকারি নিয়ম অমান্য করে যারা দোকান খোলা রেখে ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে তাদের বিষয়ে তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করতে বলেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট খাইরুল ইসলাম । পরে সরকারি নিয়ম অমান্য করায় আরও ১০ জনকে ১৬ হাজার ৪০০ টাকা জরিমানা করা হয়। এ সময় তিনি করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সকলকে নিজ নিজ উদ্যোগে সচেতন হওয়া ও সরকারি নির্দেশ মেনে চলার অনুরোধ করেন। এছাড়াও সরকারি আদেশ অমান্য করায় সদর উপজেলায় ৭ জনকে ৩৪০০ টাকা, আলমডাঙ্গা উপজেলায় ২৬ জনকে ২০১০০ টাকা এবং দামুড়হুদা উপজেলায় ৬ জনকে ৪৭০০ টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More