শিশু সন্তান রেখে গৃহবধূর আত্মহত্যা

মুন্সিগঞ্জ প্রতিনিধি: আলমডাঙ্গার খাদিমপুর ইউনিয়নের পারকৃষ্ণপুর গ্রামে ৩ মাসের কন্যা ও ৪ বছরের পুত্রসন্তান রেখে এক গৃহবধূ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। গতকাল রোববার সকালে এ ঘটনা ঘটে।
জানা গেছে, ঘরের আড়ার সাথে গলায় ওড়নার ফাঁস দিয়ে পারকৃষ্ণপুর গ্রামের মুনছুর আলীর স্ত্রী রিক্তা খাতুন (২৫) আত্মহত্যা করেছে। পরিবারের লোকজন জানান, সে দীর্ঘদিন মানসিক রোগে ভুগছিলেন। চিকিৎসা করা হয়েছে অনেক ডাক্তারের কাছে। মাথার যন্ত্রণায় প্রায় আত্মহত্যার চেষ্টা করতো সে। গতকাল রোববার বেলা ১১টার দিকে সবার অজান্তে নিজ ঘরের আড়ার সাথে গলায় ওড়নার ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন। তার ৪ বছরের শিশু পুত্র তামিম ও ৩ মাসের তানিসা নামের কন্যাসন্তান রয়েছে। মায়ের আদর বোঝার আগেই মাতৃহারা হলো শিশু দুটি। রিক্তার এ অকালমৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে গ্রামজুড়ে।
সংবাদ পেয়ে আলমডাঙ্গা থানা পুলিশের এসআই শেখ রফিকুল ইসলাম সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশ উদ্ধার করেন। তিনি দৈনিক মাথাভাঙ্গাকে জানান, আবেদনের প্রেক্ষিতে ময়না তদন্ত ছাড়া লাশ দাফনের অনুমতি দেয়া হয়েছে। গতকাল রোববার বিকেলে গ্রামের পারিবারিক কবরস্থানে জানাজা শেষে মরহুমের দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে বলে গ্রামসূত্রে জানায়।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More