দেশ বিদেশের গুচ্ছ সংবাদ

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম বন্ধের হুমকি ট্রাম্পের
মাথাভাঙ্গা মনিটর: সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারের সঙ্গে দ্বন্দ্বের জেরে অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ প্লাটফর্মগুলোও বন্ধ করে দেয়ার হুমকি দিয়েছেন ট্রাম্প। আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের উপর অনৈতিক প্রভাব বিস্তার করতে বড় মাপের প্রযুক্তি কোম্পানিগুলির যথেষ্ট প্রভাব ও ক্ষমতা রয়েছে বলে তিনি অভিযোগ করেন। ট্রাম্পের মতে, সেক্ষেত্রে আমাদের স্বাধীনতা আর থাকবে না।’ তবে ট্রাম্পের এই হুমকির পাল্টা হুঁশিয়ারি দিয়েছে টুইটার। ঘটনার সূত্রপাত গত মঙ্গলবার। টুইটার এই প্রথম প্রেসিডেন্টের এক টুইট বার্তার নিচে পাঠকদের বার্তার সততা যাচাই করার পরামর্শ দিয়েছিলো। সেই বার্তায় ট্রাম্প ক্যালিফোর্নিয়া রাজ্যে পোস্টাল ব্যালটের ক্ষেত্রে কারচুপি হবে বলে দাবি করেছিলেন। টুইটারের প্রধান জ্যাক ডরসে বুধবার বলেন, ট্রাম্পের বার্তার ফলে মানুষ ভুল পথে চালিত হতে পারেন। তারা মনে করতে পারেন, ভোট দেয়ার জন্য নিজেদের নাম নথিভুক্ত করার প্রয়োজন নেই।
ভারতে পঙ্গপাল তাড়াতে ড্রোন
মাথাভাঙ্গা মনিটর: ভারতের রাজস্থানের জয়পুরে পঙ্গপাল তাড়াতে প্রথমবারের মতো ড্রোন ব্যবহার করছে রাজ্য কর্তৃপক্ষ। গত মঙ্গলবার প্রথম দফায় কিছু ড্রোন রাজ্য কৃষি মন্ত্রণালয়কে দিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। গত বুধবার সকালে চমু তেহসিল এলাকায় ড্রোন অভিযান শুরু হয়। একদিন আগে এসে জেঁকে বসা একঝাঁক পঙ্গপাল দিতে এই ড্রোন ব্যবহার করা হয়েছে। বিভিন্ন এলাকা থেকে পঙ্গপাল তাড়িয়ে দিতে উচ্চ শব্দ সৃষ্টির পাশাপাশি ১০ লিটার করে রাসায়নিক ব্যবহারের পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। রাজ্য কৃষি বিভাগের কমিশনার ওম প্রকাশ বলেন, খোলা জায়গা ও ছোট ছোট পাহাড়ে পঙ্গপালের ওড়াউড়ি সফলভাবে নিয়ন্ত্রণ করা হয়েছে। কারণ এসব জায়গায় স্বাভাবিক ট্রাক্টর পৌঁছুতে পারে না। ড্রোনের সঙ্গে স্প্রে ট্যাংক যুক্ত করে দেয়া হয়েছে। অন্তত ১০ মিনিট তা দিয়ে রাসায়নিক স্প্রে করা সম্ভব হবে। পরে তাতে আবার রাসায়নিক ভরে নেয়া যাবে।
সৌদিতে দ’পক্ষের গোলাগুলি : প্রাণ গেলো ৬ জনের
মাথাভাঙ্গা মনিটর: সৌদি আরবের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় আসির প্রদেশে দু’পক্ষের মধ্যে গোলাগুলিতে অন্তত ছয়জন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে তিনজন। দুই পরিবারের মধ্যে বিরোধ থেকে এক সংঘর্ষ বাধে। বুধবার গালফ টুডে ও এবিসি নিউজের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইয়েমেন সীমান্তসংলগ্ন সৌদি আরবের আসির প্রদেশের আল আমওয়াহ এলাকায় মঙ্গলবার গোলাগুলির ঘটনা ঘটে। এতে ছয়জন নিহত ও তিনজন আহত হয়েছেন। আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আসির প্রদেশ পুলিশ গোলাগুলির এ ঘটনায় তদন্ত শুরু করেছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর মুখপাত্র লে. কর্নেল জায়েদ আল দাব্বাসের বরাত দিয়ে সৌদি প্রেস এজেন্সি জানিয়েছে, ঘটনায় নিহতরা সবাই সৌদির নাগরিক। ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ বিষয়টি তদন্ত করে দেখছে।
ডাকঘর সঞ্চয়ে ২০ লাখ টাকার বেশি রাখা যাবে না
স্টাফ রিপোর্টার: ডাকঘর সঞ্চয় স্কিমের আওতায় সাধারণ ও মেয়াদী আমানতের সীমা এক তৃতীয়াংশে নামিয়ে এনেছে সরকার। আগে এই স্কিমে একক ও যৌথ নামে যথাক্রমে ৩০ লাখ ও ৬০ লাখ টাকা বিনিয়োগের সুযোগ ছিলো। সরকারের নতুন আদেশে তা নেমে এসেছে যথাক্রমে ১০ লাখ ও ২০ লাখ টাকায়। অর্থ মন্ত্রণালয়ের অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগ (আইআরডি) সম্প্রতি জারি হওয়া এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন গতকাল বৃহস্পতিবার প্রকাশ করেছে। এটি কার্যকর হবে গত ১৮ মে থেকে। এর ফলে এ খাতে ঢালাও বিনিয়োগের সুযোগ কমে এলো। অন্যদিকে ঝুঁকিপূর্ণ বিনিয়োগ এড়িয়ে এ খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে যারা সংসারের ব্যয় নির্বাহ করতেন, তারা বিপাকে পড়বেন।
দিনাজপুরে বিষাক্ত স্পিরিট পানে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ১০
স্টাফ রিপোর্টার: দিনাজপুরের বিরামপুরে বিষাক্ত স্পিরিট (অ্যালকোহল) পানে বুধবার সকালে ছয়জনের মৃত্যুর পর গত বুধবার রাতে আরও চারজনের মৃত্যু ঘটেছে। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১০জন। এ ঘটনায় আরও কয়েকজন অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। পুলিশ নিহতদের লাশ উদ্ধার করেছে। এ ঘটনায় পুলিশ এক হোমিও চিকিৎসককে আটক করেছে। জানা গেছে, বিরামপুর পৌর এলাকার মাহমুদপুর গ্রামে আব্দুল আজিজের ছেলে সোহেল রানা (৩০), আবুল হোসেনের ছেলে মনোয়ার হোসেন (৪২), আব্দুল খালেকের ছেরে আব্দুল আলীম (৪০), কাজীপাড়া মহল্লার ইসরাফিলের ছেলে আনোয়ার হোসেন (৪২) মঙ্গলবার নেশা করার উদ্দেশে স্পিরিট (অ্যালকোহল) পান করলে বুধবার রাতে তাদের মৃত্যু হয়। এর আগে একই ঘটনায় বুধবার সকাল থেকে সন্ধ্যার মধ্যে ছয়জনের মৃত্যু হয়। গত বুধবারের সকালে মৃতরা হলেন মাহমুদপুর গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে আব্দুল মতিন (২২), সুলতান আলীর ছেলে মহসীন আলী (২৭), তোজাম্মেলের ছেলে আজিজুল (৩০), ইসলামপাড়ার তাপস বাক্সির ছেলে অমৃত বাক্সি (২৪), হঠাৎপাড়া মহল্লার স্বামী শফিকুল (৫৫) ও স্ত্রী মঞ্জুুয়ারা (৩৫)। স্পিরিট পানকারী আরও ছয়জন দৃষ্টি শক্তি হারিয়েছেন।
করোনায় মাস্ক ব্যবহারে কমেছে লিপস্টিক বিক্রি
স্টাফ রিপোর্টার: নারীদের সবচেয়ে পছন্দের মেকআপ সঙ্গী হল লিপস্টিক। অন্য কোনো সাজগোজ না করলেও ঠোঁটজোড়া একটু রাঙিয়ে নিতে ভালোবাসেন তারা। কিন্তু সেই ঠোঁটের সাজে বাধ সেধেছে করোনাভাইরাস। করোনার কারণে এখন বাইরে বের হলেই পরতে হবে মাস্ক। তাই অনেকটা বিপাকে পড়েছেন নারীরা। পছন্দের লিপস্টিকে ঠোঁট রাঙাতে পারছেন না তারা। এই অবস্থায় কমেছে লিপস্টিকের ব্যবহার। লিপস্টিক বিক্রিতেও তার উল্লেখযোগ্য প্রভাব পড়েছে বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। মেকআপ কোম্পানিগুলোও সেই কারণে লিপস্টিকের বদলে আই মেকআপের দিকে নজর দিচ্ছে। মাস্কে মুখ ঢাকা থাকলেও খোলা থাকছে চোখদুটো। তাই বাইরে বেরনোর আগে সেটাকেই সুন্দর করে সাজাতে চাইছেন নারীরা। লিপস্টিক, লিপলাইনার, লিপজেলের পরিবর্তে এখন বাজারে বেশি করে আইলাইনার, মাসকারা, আইশ্যাডো নিয়ে আসার প্রস্তুতি নিচ্ছে বিভিন্ন কসমেটিকস কোম্পানি।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More