দেশ বিদেশের গুচ্ছ সংবাদ

করোনা মহামারি : ইন্দোনেশিয়া থেকে হজযাত্রা বাতিল
মাথাভাঙ্গা মনিটর: করোনা মহামারির কারণে চলতি বছরে হজযাত্রা বাতিল করেছে বিশ্বের বৃহত্তম মুসলিম দেশ ইন্দোনেশিয়া। গতকাল মঙ্গলবার দেশটির ধর্মমন্ত্রী ফখরুল রাজি এ কথা জানিয়েছেন। এ বছর ইন্দোনেশিয়া থেকে হজের জন্য দুই লাখ ২১ হাজার মানুষ সৌদি যেতে পারতেন। ইতোমধ্যে ৯০ শতাংশেরও বেশি লোক হজে যাওয়ার জন্য রেজিস্ট্রেশন করেছিলেন। কিন্তু শেষপর্যন্ত হজযাত্রা স্থগিত করা হয়। প্রতি বছর ইন্দোনেশিয়া থেকে কয়েক লাখ মুসলিম হজ করতে সৌদি আরব যান। কোটা পদ্ধতির কারণে ২০ বছর অপেক্ষা করতে হওয়ায় অনেক ইন্দোনেশিয়ার নাগরিক জীবনে মাত্র একবার হজ করার সুযোগ পান।
ভারতীয় সীমান্তে চীনা আগ্রাসনে যুক্তরাষ্ট্রের উদ্বেগ
মাথাভাঙ্গা মনিটর: চীনা সেনাবাহিনী ভারতীয় সীমান্তে উত্তেজনা সৃষ্টি করে দিল্লির ওপর চাপ প্রয়োগের চেষ্টায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে মার্কিন কংগ্রেসের পররাষ্ট্র বিষয়ক কমিটির প্রধান ইলিয়ট এল এঙ্গেল। গত সোমবার রাতে এক বিবৃতিতে তিনি বলেন, লাদাখের প্রকৃত নিয়ন্ত্রণ রেখা ধরে যেভাবে ভারতের বিরুদ্ধে চীন আগ্রাসন নীতি নিয়েছে তাতে যুক্তরাষ্ট্র অত্যন্ত উদ্বিগ্ন। তিনি বেইজিংকে সীমান্ত রেখা লঙ্ঘন না করার জন্য নিয়ম-নীতি মেনে চলা ও কূটনীতির মাধ্যমে সমস্যা সমাধানের জন্য আহ্বান জানান। ভারত ও চীনের মধ্যকার সীমান্ত সমস্যার সমাধান নির্দিষ্ট প্রক্রিয়া মেনেই করা উচিত বলে মনে করেন মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এ প্রতিনিধি।
মার্কিন রাজনীতিবিদদের নিজের চরকায় তেল দেয়া উচিত : চীন
মাথাভাঙ্গা মনিটর: সংখ্যালঘুদের বিরুদ্ধে বর্ণবৈষম্য দূর করতে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে চীন। এছাড়া মার্কিন রাজনীতিবিদদের নিজের চরকায় তেল দেয়া উচিত বলেও মন্তব্য করেছেন দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র জহাও লিজান। তিনি বলেন, জর্জ ফ্লয়েডকে হত্যার পর যুক্তরাষ্ট্রের উদ্ভূত পরিস্থিতি আমরা পর্যবেক্ষণে রেখেছি। কালো মানুষদেরও বেঁচে থাকার অধিকার আছে। তাদের মানবাধিকার সুরক্ষা দেয়া উচিত। তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রে বর্ণবৈষম্য একটি সামাজিক ব্যাধির মতো। সেখানে বারবার যা ঘটছে, তা মারাত্মক সংকটেরই প্রতিফলন। তাদের উচিত এই সমস্যার জরুরি ভিত্তিতে সমাধান করা। সেটা হচ্ছে, পুলিশের বর্ণবৈষম্য ও সহিংস বলপ্রয়োগ।
ভারতের দক্ষিণ আসামে ভূমিধসে ২০ জনের মৃত্যু
মাথাভাঙ্গা মনিটর: ভারতের দক্ষিণ আসামে ধারাবাহিক ভূমিধসে প্রায় ২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও অনেকে। গতকাল মঙ্গলবার আসামের বরাক উপত্যকার তিনটি জেলায় ভূমিধসের ঘটনাগুলো ঘটে। দেশটির সরকারি সূত্র জানিয়েছে, মৃতদের মধ্যে সাতজন কাছাড় জেলার, সাতজন হাইলাকান্দির ও ছয়জন করিমগঞ্জের। মারা যাওয়াদের মধ্যে ১১ শিশু ও তিন নারী রয়েছেন। উদ্ধারকারী দল দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়েছে। এই অঞ্চলটিতে গত দুই দিন ধরে ভারী বৃষ্টি হচ্ছে। এছাড়া গত এক সপ্তাহ ধরে আসামের মানুষ বন্যার সঙ্গে লড়াই করছে। সোমবার থেকে বন্যার পানি কমলেও এতে ৯ জন মারা গিয়েছে।
এল সালভাদর ও গুয়েতেমালায় ‘আমান্দার’ আঘাত : ১৭ জনের প্রাণহানি
মাথাভাঙ্গা মনিটর: প্রশান্ত মহাসাগরে মরসুমের প্রথম গ্রীস্মম-লীয় ঝড় আমান্দা রোববার এল সালভাদর ও গুয়েতেমালায় আঘাত হেনেছে। এতে অন্তত ১৭ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া এর প্রভাবে ওই অঞ্চলে বন্যা ও বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। এল সালভাদরের প্রেসিডেন্ট নায়িব বুকেলে ঝড়ের প্রভাব মোকাবেলায় ১৫ দিনের জরুরি অবস্থা জারি করেছেন। ঝড়ের আঘাতে যারা মারা গেছেন তারা সকলেই এল সালভাদরের বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী মারিও দুরান। প্রাণহানির সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে তিনি আশংকা করেছেন। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আমান্দার আঘাতে গাছপালা উপড়ে গেছে, আকস্মিক বন্যা দেখা দিয়েছে এবং ভূমিধস হয়েছে।

চেয়ারম্যানসহ আরও ১১ জনপ্রতিনিধিকে বরখাস্ত
স্টাফ রিপোর্টার: কর্মস্থলে অনুপস্থিতি, প্রধানমন্ত্রীর কর্তৃক মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে নগদ অর্থ সহায়তা ও ত্রাণ বিতরণে অনিয়মসহ বিভিন্ন অভিযোগে দেশের ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যানসহ আরও ১১ জনপ্রতিনিধিকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত পৃথক পৃথক প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। বরখাস্ত হওয়া জনপ্রতিনিধিদের মধ্যে রয়েছেন ৪ জন ইউপি চেয়ারম্যান ও ৬ জন ইউপি সদস্য এবং একজন পৌর কাউন্সিলর। সাময়িক বরখাস্ত হওয়া ইউপি চেয়ারম্যানরা হলেন কিশোরগঞ্জ জেলার নিকলী উপজেলার সিংপুর ইউপির মো. আনোয়ারুল হক, বাজিতপুর উপজেলার হালিমপুর ইউপির হাজী মো. কাজল ভূইয়া, বরগুনা জেলার সদর উপজেলাধীন এম বালিয়াতলী ইউপির মো. শাহনেওয়াজ এবং নলটোনা ইউপির হুমায়ুন কবীর। বরখাস্তকৃত ইউপি সদস্যরা হলেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সদর উপজেলাধীন মজলিশপুর ইউপির ২নং ওয়ার্ডের সদস্য হারিছ মিয়া এবং ৭নং ওয়ার্ডের সদস্য হাছান মিয়া, বরগুনা জেলার সদর উপজেলাধীন নলটোনা ইউপির ৭নং ওয়ার্ডের সদস্য মো. হারুন মিয়া, ৮নং ওয়ার্ডের সদস্য মো. হানিফ, ১, ২ ও ৩নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা আসনের সদস্য মোসা. রানী এবং ৭, ৮ ও ৯নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা আসনের সদস্য ছাবিনা ইয়াসমিন (পলি)। এছাড়া বরখাস্তকৃত পৌরসভার কাউন্সিলর হলেন চট্টগ্রামের জেলার বোয়ালখালী পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মো. সোলাইমান বাবুল।
স্বাস্থ্যবীমার আওতায় আসছে ঢাবির সব শিক্ষার্থী
স্টাফ রিপোর্টার: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সুচিকিৎসা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে সব শিক্ষার্থীকে স্বাস্থ্য বীমার আওতায় আনার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিনস কমিটির এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। মঙ্গলবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবনের সেমিনার রুমে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে ডিনস কমিটির এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। স্বাস্থ্যবিধি ও সামাজিক দূরত্ব অনুসরণ করে এ সভার আয়োজন করা হয়। সভায় শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্যবীমা, টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জন এবং শিক্ষা কারিকুলাম উন্নয়নসহ বিভিন্ন বিষয়ে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করা হয়। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব শিক্ষার্থীকে স্বাস্থ্যবীমার আওতায় আনার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। শিক্ষার্থীদের স্বাস্থ্য সচেতন, দায়িত্ববোধ সম্পন্ন ভালো গ্র্যাজুয়েট ও সুনাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে ন্যূনতম প্রিমিয়ামে শিক্ষার্থীদের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাসেবা প্রাপ্তির লক্ষ্যে নীতিমালা প্রণয়নের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষকে সভাপতি করে ৬-সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।
করোনায় পিছিয়ে গেলো নতুন শিক্ষাক্রমের বই বিতরণ
স্টাফ রিপোর্টার: আগামী বছর থেকে পর্যায়ক্রমে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই দেয়ার কথা ছিলো সারাদেশের প্রাথমিক ও মাধ্যমিকের সব শিক্ষার্থীদের। কিন্তু করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে তা পিছিয়ে গেলো। তবে এক বছর পিছিয়ে ২০২২ সাল থেকে নতুন শিক্ষাক্রমে পাঠ্যবই বিতরণ করা হবে। গতকাল মঙ্গলবার রাজধানীর আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির সভাপতিত্বে আয়োজিত এক বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। ২০২১ সালের মধ্যে প্রাক প্রাথমিক থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত নতুন শিক্ষাক্রম চালু করার পূর্ব নির্ধারিত লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। সভায় উপস্থিত ছিলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন, শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. মাহবুব হোসেন, কারিগরি ও মাদরাসা বিভাগের সচিব মুনশী শাহাবুদ্দীন আহমেদ, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন। বৈঠকে উপস্থিত জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের (এনসিটিবি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলেন, করোনা পরিস্থিতির কারণে ২০২১ সালে নতুন শিক্ষাক্রমের বই দেয়া সম্ভব হবে না। নতুন শিক্ষাক্রমের পাঠ্যবই শিক্ষার্থীরা পাবে ২০২২ সাল থেকে। তবে নতুন শিক্ষাক্রমের আলোকে আগামী বছর একটি শিক্ষক নির্দেশিকা শিক্ষকদের দেয়া হবে। এই নির্দেশিকা পড়ে ২০২২ সালের নতুন শিক্ষাক্রম সম্পর্কে শিক্ষকরা ধারণা পাবেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More