প্রত্যাশা সামাজিক উন্নয়ন সংস্থা প্রসংসার দাবি রাখে

চুয়াডাঙ্গায় প্রতিবন্ধীদের মাঝে খাদ্য ও হাইজিন সামগ্রী বিবরণ
স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গায় প্রতিবন্ধীদের মাঝে খাদ্য ও হাইজিন সামগ্রী বিবরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শনিবার দুপুর ২টার দিকে কালেক্টরেট স্কুল এন্ড কলেজে চত্বরে ইমারজেন্সি রেসপন্স ফর কোভিড-১৯ প্রকল্পের আওতায় প্রত্যাশা সামাজিক উন্নয়ন সংস্থার আয়োজনে ডিআরআরএ ও এসএলএফ নেদারল্যান্ডসের সহযোগিতায় প্রতিবন্ধীদের মাঝে এ খাদ্য ও হাইজিন সামগ্রী বিবরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আরাফাত রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আ.লীগের সভাপতি চুয়াডাঙ্গা-১ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, দেশ ও দেশের মানুষের ভাগ্যোন্নয়নে রাত দিন অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মহামারি করোনাকালে সারাবিশ্ব যখন হিমশিম খাচ্ছিলো, সেই সময়েও বাংলাদেশ শক্ত অবস্থানে ছিলো। প্রত্যাশা সামাজিক উন্নয়ন সংস্থার দীর্ঘদিন ধরে সমাজের পিছিয়ে পড়া প্রতিবন্ধীদের নিয়ে কাজ করার মাধ্যমে তাদের জীবনমান উন্নয়নে বিভিন্ন কার্যক্রম বাস্তবায়ন করছেন। প্রত্যাশা সামাজিক উন্নয়ন সংস্থা যে ডিআরআরএ ও এসএলএফ নেদারল্যান্ডসের কাছ থেকে ফান্ড সংগ্রহ করে চুয়াডাঙ্গার জেলার প্রতিবন্ধীদের জন্য সহযোগিতা করে যাচ্ছে তা নিঃসন্দেহে প্রশংসনীয়। তিনি আরো বলেন, ইতোপূর্বেও মহামারি করোনা ভাইসের সময় সংস্থাটি বিভিন্ন দাঁতা সংস্থার কাছ থেকে ফান্ড সংগ্রহ করে চুয়াডাঙ্গা জেলায় প্রতিবন্ধীদের জন্য কাজ করেছে তা প্রসংসার দাবি রাখে।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন চুয়াডাঙ্গা সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ সিদ্দিকুর রহমান, প্রতিবন্ধী সেবা ও সাহায্য কেন্দ্রের কনসালট্রেন্ট ফিজিও থেরাপিস্ট নূর আলম আকাশ, প্রত্যাশা সামাজিক উন্নয়ন সংস্থার সমন্বয়কারী সাইদুর রহমান, প্রকল্প সমন্বয়কারী তোফায়েলে আহমেদ প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন সংস্থার প্রকল্প সমন্বয়কারী ইউনুস আলী। সহযোগিতায় ছিলেন প্রাইড প্রকল্পের প্রোগ্রাম সুপারভাইজার আসাদুজ্জামান, মহিবুল হাবীব। চুয়াডাঙ্গায় পৌরসভার ৩৪০ জন প্রতিবন্ধীদের মাঝে খাদ্য ও হাইজিন সামগ্রী চাল ১০ কেজি, মসুর ডাউল ২ কেজি, আলু ৩ কেজি, লবন এককেজি, চিনি এককেজি, সোয়াবিন তেল এক লিটার, মাস্ক ৬ পিস, লাইফবয় সাবান এক পিস বিতরণ করা হয়।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More