অসহায় মানুষের কর্মসংস্থান নিয়ে পাশে দাঁড়িয়েছে গাংনীর অসহায় মানব কল্যাণ সংস্থা

গাংনী প্রতিনিধি: শারীরিক পঙ্গুত্ব নিয়ে কেউ আজ কর্মহীন। আবার যথাযথ কর্ম না পেয়েও অনেকে কর্মহীন প্রায়। অপরদিকে স্বামীহারা অনেক নারীকে সন্তানদের ভবিষ্যত গড়ার আশা সংসারযুদ্ধে নামিয়েছে। উপার্জনহীন প্রায় এসব মানুষের কর্মসংস্থারের লক্ষ্যে সহযোগিতার হাত বাড়িয়েছে গাংনী অসহায় মানব কল্যাণ সংস্থা। গাংনীর বিভিন্ন শ্রেণিপেশার সুহৃদয়বান মানুষের ছোট ছোট আর্থিক সহযোগিতায় অসহায় মানুষের সহযোগিতা অব্যাহত রয়েছে।
অরাজনৈতিক ও সম্পূর্ণ স্বেচ্ছাসেবী এ সংগঠনের উদ্যোগে অসহায় মানুষের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে পাখিভ্যান ও সেলাই মেশিন বিতরণ এবং চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হয়েছে। গতকাল শুক্রবার দুপুরে গাংনী কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে আনুষ্ঠানিকভাবে এ সহায়তা দেয়া হয়।
সংস্থার প্রায় ৪শ দাতা সদস্যের অর্থে এ সহায়তা প্রদান করা হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন গাংনী অসহায় মানব কল্যাণ সংস্থার সভাপতি হাজি মহসিন আলী। বক্তব্য রাখেন সংস্থার উপদেষ্টা হাজি আলফাজ উদ্দীন, সাধারণ সম্পাদক হাজি এনামুল হক, সংস্থার সহায়তা তদন্ত কমিটির প্রধান বশির আহম্মেদ, সদস্য মশিউর রহমান ও নাজমুল ইসলাম বাবুল, সাংগঠনিক সম্পাদক ও রাইপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয় প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমান।
সংস্থার দপ্তর সম্পাদক মাজেদুল হক মানিকের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে দাতা সদস্যদের মাধ্যে আরও বক্তব্য রাখেন এসএম প্লাজার স্বত্বাধিকারী রবিউল ইসলাম, গাংনীর উত্তরপাড়ার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী বজলুর রহমান, আব্দুল হান্নান ও কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের ইংরেজি বিভাগের শিক্ষক রফিকুল ইসলাম।
অনুষ্ঠানে দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন গাংনী দারুচ্ছালাম জামে মসজিদের ইমাম হাফেজ মাও. রুহুল আমিন।
সহায়তা প্রতাশ্যার জন্য সংস্থায় আবেদনকারীদের মধ্য থেকে বাছাই করে স্বামীহারা ছয় নারীকে সেলাই মেশিন ও শারীরিক প্রতিবন্ধী ৫ জনকে পাখিভ্যান এবং অসহায় রোগীদের চিকিৎসার জন্য দেড় লক্ষাধিক নগদ টাকা সহায়তা প্রদান করা হয়। সেলাই মেশিন ও পাখিভ্যানে আয় রোজগার করে সংসার চালাতে পারবেন বলে উচ্ছ্বসিত প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন সহযোগিতা প্রাপ্তরা।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More