আজ দামুড়হুদা উপজেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন

হারুন রাজু/হানিফ মণ্ডল:

দীর্ঘ জল্পনা-কল্পনার অবসান ঘটতে পারে আজ। অবশেষে টানা দেড়যুগ পর দামুড়হুদা উপজেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন হতে যাচ্ছে আজ মঙ্গলবার। বেশ কয়েকদিন ধরেই চলছে ব্যাপক প্রস্তুতি। প্রধান সড়কের মোড়ে মোড়ে ছাড়াও গুরুত্বপূর্ণ স্থানে তোরণ নির্মাণ করা হয়েছে। ছবি সংবলিত বিলবোর্ডে যেন ছেয়ে গেছে গোটা দর্শনা। সেই সাথে ঝড় উঠেছে সামাজিক যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম ফেসবুকে। নামে-বেনামে আইডি খুলে পক্ষে-বিপক্ষে প্রচারের মহড়া চলছে। এখন দেখার অপেক্ষামাত্র। দর্শনা অডিটেরিয়াম কাম কমিউনিটি সেন্টারে সম্মেলন থেকে কার কার নাম ঘোষণা হয়। তবে মূল দুটি পদের জন্য কোনো প্রার্থীই ঘরে বসে নেই। তারা অবিরাম ছুটছে দলের নীতি নির্ধারকদের দ্বারে। কেউ কেউ দলের হাইকমান্ডেও যোগাযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। সম্মেলন সফল করতে চুয়াডাঙ্গা-২ আসনের সংসদ সদস্য হাজি আলী আজগার টগর দফায় দফায় দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে বৈঠক করছেন, দিচ্ছেন দিক-নিদের্শনা। এদিকে দর্শনা পৌর আ.লীগের পক্ষ থেকে ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। দলের কেন্দ্রীয় ২ নেতা দুদিন আগেই ঢাকা থেকে অবস্থান করেছেন দর্শনায়। গতকাল সোমবার জীবননগর উপজেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন শেষ করা হয়েছে। ২০০৪ সালের এপ্রিল মাসে দামুড়হুদা উপজেলা আ.লীগের কমিটি গঠন করা হয়। যে কমিটির সভাপতি সিরাজুল আলম ঝন্টু ও সাধারণ সম্পাদক মাহফুজুর রহমান মঞ্জু নির্বাচিত হন। আজ মঙ্গলবার সকাল ১০ টার দিকে শুরু হবে দামুড়হুদা উপজেলা আ.লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন। এবারের সম্মেলনে উপজেলা আ.লীগের সভাপতি পদে ৪ ও সাধারণ সম্পাদক পদ পাওয়ার জন্য ৫ জনের নাম শোনা যাচ্ছে। এবারো সভাপতি সিরাজুল আলম ঝন্টু ফের একই পদের প্রার্থী হলেও মাহফুজুর রহমান মঞ্জু সাধারণ সম্পাদেকর পদ ছেড়ে সভাপতি প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা দিয়েছেন। সভাপতি পদে আরো নাম শোনা যাচ্ছে হাউলী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান হাজি সহিদুল ইসলাম ও জুড়–নপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেনের। সাধারণ সম্পাদক পদে ফেসবুকসহ দলীয় নেতাকর্মীদের মুখে মুখে দামুড়হুদা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলী মুনছুর বাবুর নাম শোনা যাচ্ছে। সাধারণ সম্পাদক পদে অন্যান্যের মধ্যে পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, উপজেলা আ.লীগের যুগ্ম-সম্পাদক এএসএম জাকারিয়া আলম, নতিপোতা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আ. আজিজ, আ.লীগ নেতা শহিদুল ইসলাম ও যুবলীগ নেতা আবু তালেবের। সম্মেলনে প্রধান অতিথি থাকবেন আ.লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, বিশেষ অতিথি কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য পারভিন জামান কল্পনা, চুয়াডাঙ্গা জেলা আ.লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা সোলায়মান হক জোয়াদ্দার ছেলুন এমপি, সহসভাপতি হাজি আলী আজগার টগর এমপি, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আজাদুল ইসলাম আজাদসহ জেলা ও উপজেলা আ.লীগের নেতৃবৃন্দ। সম্মেলনের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে নেতাকর্মীদের মধ্যে ততই বাড়ছে আগ্রহ। কে কে পাচ্ছেন উপজেলা আ.লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের চেয়ারম্যান তা নিয়ে যেন কমতি নেই আলোচনার। দলের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের অভিমত উপজেলা আ.লীগের কমিটিতে যে যে আসুক অবশ্যই তারা যেনো তৃণমূল পর্যায়ের ত্যাগী এবং কর্মীবান্ধব নেতা হয়। কোনোপ্রকার হাইব্রিড নেতা যেনো কমিটিতে স্থান না পায় সেদিকে খেয়াল রাখা উচিত দলের নীতি নির্ধারকদের।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More