কৃষি জমি নষ্ট করে এলাকায় দুর্ভিক্ষ ডেকে আনবেন না

রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে কার্পাসডাঙ্গায় আয়োজিত সমাবেশে সরকারের উদ্দেশে বক্তারা

ভ্রাম্যমাণ/কার্পাসডাঙ্গা প্রতিনিধি: দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা এলাকায় রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠেছে এলাকার সাধারণ কৃষক ও দারিদ্র্যপীড়িত মানুষ। তারা গতকাল রোববার বিকেলে এলাকায় সমবেত হয়ে জোর প্রতিবাদ জানান। এলাকার কৃষি জমির ওপর দিয়ে রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্তের ঘোর প্রতিবাদ জানান এলাকাবাসী।

গতকাল রোববার বিকেলে এলাকার সচেতন মহল আয়োজিত সমাবেশ ও আলোচনাসভা দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা বাজার সংলগ্ন কোমরপুর ব্রিজ মোড়ে  (কার্পাসডাঙ্গা ৪নং ওয়ার্ড কোমরপুর-বাঘাডাঙ্গা) অনুষ্ঠিত হয়। ডা. রবিউল হকের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা বলেন, বর্তমান সরকার কৃষিবান্ধব সরকার। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে কৃষিক্ষেত্রে বিপ্লব ঘটেছে। এ কারণে এদেশে কৃষকসমাজ মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে। কিন্তু অত্যন্ত দুঃখের বিষয় এই কৃষিবান্ধব সরকারই  কৃষি জমি নষ্ট করে রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যে কারণে এলাকার হাজার হাজার বিঘা তিন ফসলি কৃষি জমি নষ্ট হবে। আর এই এলাকার ওপর দিয়ে রেললাইন স্থাপন প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে এলাকার কৃষিজীবী মানুষ না খেয়ে মরবে। সরকারের কাছে আমাদের জোর দাবি রেললাইন স্থাপন করে এলাকায় দুর্ভিক্ষ ডেকে আনবেন না। রেললাইন স্থাপন কার্যক্রম বন্ধ না করা হলে আমরা দুর্বার আন্দোলন গড়ে তুলবো। তবু এলাকার হাজার হাজার বিঘা কৃষি জমি নষ্ট হতে দেবো না। প্রতিবাদ সমাবেশে অন্যান্য ব্যক্তিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাহিদুর রহমান মুকুল, রবিউল হোসেন সুকলাল, ইউপি সদস্য মনিরুজ্জামান মন্টু, ডা. ইবাদত আলী, আবুল কাশেম, আশরাফ আলী, রবজেল আলী, হযরত আলী, মহাসিন আলী, নোয়াজ্জেশ আলী, আলাউদ্দিন, মওলা বক্স, তমিজ উদ্দিন, মোস্তাফিজ কচি, বখতিয়ার বকুল, মেহেদি মিলন, আবু জাফর, আক্তার, সানাউল কবির শিরিন, তারিকুল, গনি, শেখ শাহিন, মুকুল ম-ল প্রমুখ। অনুষ্ঠান শেষে রবিউল হোসেন সুকলালকে আহ্বায়ক ও মনিরুজ্জামান মন্টুকে যুগ্ম-আহ্বায়ক করে ১৫ সদস্য বিশিষ্ট রেললাইন স্থাপন প্রতিরোধ কমিটি গঠন করা হয়। আজ সোমবার কার্পাসডাঙ্গা এলাকায় রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হবে।

প্রসঙ্গত, চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা থেকে শুরু হয়ে কার্পাসডাঙ্গা বাজারের কোলঘেঁষে মুজিবনগরের ওপর দিয়ে মেহেরপুর পর্যন্ত রেললাইন স্থাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। সম্প্রতি কার্পাসডাঙ্গার পার্শ্ববর্তী গ্রাম বাঘাডাঙ্গা ও কোমরপুর এলাকা মাপজোপ করা হয় রেললাইন স্থাপনের জন্য। এরপরই ফুঁসে ওঠে এলাকার সাধারণ মানুষ।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More