খেলার সাথিদের বাঁচিয়ে চিরতরে চলে গেলো শিশু চাঁদনী

নিজের জীবন দিয়ে খেলার সাথীদের বাঁচাল ১০ বছর বয়সী চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী চাঁদনী। কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার জগন্নাথপুর ইউনিয়নের চরজগন্নাথপুর গ্রামে খেলার সাথীদের বাঁচাতে গিয়ে পানিতে ডুবে প্রাণ হারিয়েছে সে। বুধবার সন্ধ্যার আগে চর মহেন্দ্রপুর কোলের পানিতে ডুবে সে মারা যায়। চাঁদনী জগন্নাথপুর ইউনিয়নের চরমহেন্দ্রপুর গ্রামের রাসেম খাঁর মেয়ে।
চাঁদনীর মামা শিপন জানান, প্রতিদিনের মতো চাঁদনী তার খেলার সাথী রনি ও হোসাইনকে নিয়ে চরমহেন্দ্রপুর কোলে নিজেই ছোট ডিঙি নৌকা চালিয়ে ওপারে ঘাস কাটতে গেলে কোলের মাঝামাঝি পৌঁছার পর নৌকা উল্টে যায়। তিনজনের মধ্যে চাঁদনী সাঁতার জানতো যে কারণে সে তার খেলার সাথীদের বাঁচাতে নিজের জীবনের পরোয়া না করে তাদের উদ্ধার করলেও নিজে আর পাড়ে উঠতে পারেনি। চাঁদনী পানিতে ডুবে গেলে তার উদ্ধারকৃত খেলার সাথীরা বাড়িতে এসে খবর দিলে বাড়ির লোকজন গিয়ে পানি থেকে তার নিথর দেহ উদ্ধার করেন। কুমারখালী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের উদ্দেশ্য রওনা হবার পর মহেন্দ্রপুর বাজার গিয়ে পল্লী চিকিৎসককে দেখালে তিনি পরীক্ষা করে তাকে মৃত বলে জানান। পরে চাঁদনীর লাশ বাড়িতে নিয়ে গেলে হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়। স্বজনদের আহাজারিতে পরিবেশ ভারি হয়ে উঠে।
ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জগন্নাথপুর ইউপি চেয়ারম্যান ফারুখ আহমেদ খান জানান, সন্ধ্যার দিকে চরমহেন্দ্রপুর কোল থেকে চাঁদনীর লাশ উদ্ধার করেছেন তার স্বজনরা। রাতে শিশুটির লাশ দাফন করা হয়েছে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More