চুয়াডাঙ্গার ইমারজেন্সি রোড থেকে অটো ছিনতাই

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা ইমারজেন্সি রোড থেকে অভিনব কায়দায় অটোরিকশা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। দু’সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও উদ্ধার হয়নি ছিনতাই হওয়া অটোরিকশাটি। গত ১৫ নভেম্বব সোমবার বেলা ১১টার দিকে চুয়াডাঙ্গা ইমারজেন্সি রোড থেকে মেজবাউল হকের অটোরিকশাটি অভিনব কায়দায় ছিনতাই করে চক্রের ২ সদস্য। মেজবাউল হক জানান গত সোমবার সকাল ৯টার দিকে কার্পাসডাঙ্গার এমএম তেলপাম্পের নিকট ভাড়া মারার উদ্দেশে দাঁড়িয়ে থাকি, এমন সময় অজ্ঞাত দুই যুবক এসে বলেন, চুয়াডাঙ্গা থেকে মুদি দোকানের মালামাল কার্পাসডাঙ্গায় আনতে হবে। চালক মেজবাউলের সাথে ওই দুই ব্যক্তির ৫০০ টাকা ভাড়া চুক্তি করে চুয়াডাঙ্গার উদ্দেশে রওনা দেয়। বেলা ১১টার দিকে চুয়াডাঙ্গা ইমারজেন্সি রোডে পৌঁছুলে একজন ছিনতাইকারী অটোরিকশা থেকে নেমে অপরজনকে বলে তুমি অটোতে বসে থাকো আমি আর চালক গিয়ে দোকানের মালামাল নিয়ে আসছি। এই বলে দুইজন মিলে সামনে এগুতে থাকে এমন সময় অটোতে বসে থাকা ব্যক্তিটি কৌশলে অটো নিয়ে পালিয়ে যায়। অপর ব্যক্তি ইজিবাইক চালকের একটি চায়ের দোকানে চা খেতে দিয়ে দড়ি আনার নাম করে পালিয়ে যায়। কিছুক্ষণ পড়ে ইজিবাইক চালক মেজবাউল হক অটোরিকশা কাছে ফিরে এসে দেখেন অটো রিকশাটি নেই। এই ঘটনায় তাৎক্ষণিক তিনি চুয়াডাঙ্গা সদর থানায় গিয়ে ইজিবাইক ছিনতাই হয়েছে বলে অভিযোগ দায়ের করেন। এই ঘটনায় দরিদ্র অসহায় অটোচালক মেজবাউল তার সর্বশেষ একমাত্র রোজকারের উৎসটি হারিয়ে দেশেহারা হয়ে পড়ে। এ দিকে দু’সপ্তাহ পেরিয়ে গেলেও চুরি হয়ে যাওয়া অটোরিকশাটি উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। এ বিষয়ে মেজবাউল হক ২৫ নভেম্বর চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More