চুয়াডাঙ্গার গড়াইটুপি ইউপি নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল ওয়াহেদের মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা : অন্য সকল প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার নবগঠিত গড়াইটুপি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল ওয়াহেদের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। গতকাল শনিবার সদর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. কামরুল হাসান এ মনোনয়নপত্র বাতিল করেন। তবে, গতকাল রোববার থেকে তিন কর্মদিবসের মধ্যে আব্দুল ওয়াহেদ আপীল করতে পারবেন। গড়াইটুপি ইউপির চেয়রম্যান পদে চারজন, সংরক্ষিত সদস্য ও সাধারণ সদস্য পদে সকল প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়। আগামী ৪ অক্টোবর প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। আগামী ২০ অক্টোবর ইভিএম-এর মাধ্যমে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।
গতকাল শনিবার বেলা ১১টায় জেলা নির্বাচন কার্যালয়ে গড়াইটুপি ইউনিয়ন পরিষদের মনোনয়নপত্র বাছাই করা হয়। এসময় রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. কামরুল হাসান, এলজিইডির সিনিয়র সহকারী প্রকৌশলী রফিকুর রহমান খান, এসআই সমজের আলী, এসআই আব্দুল্লাহ আল বাতেন, জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কার্যালয়ের আব্দুল হান্নান, নির্বাচনে অংশগ্রহণকারী প্রার্থীরা, প্রার্থীদের প্রস্তাবকারী ও সর্মথনকারীরা উপস্থিত ছিলেন।
চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার নবগঠিত গড়াইটুপি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ মনোনীত শফিকুর রহমান রাজু (নৌকা), বিএনপি মনোনীত আকতার হোসেন (ধানের শীষ), রেজাউল করিম (স্বতন্ত্র) এবং আব্দুল মতিন (স্বতন্ত্র) প্রার্থী বাছাইপর্বে বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়। সংরক্ষিত সদস্য পদে ১নং ওয়ার্ডে উম্মে হাসিনা, রওশন আরা বেগম ও নাসিমা খাতুন, ২নং ওয়ার্ডে তাসলিমা খাতুন ও মৌসুমী বেগম এবং ৩নং ওয়ার্ডে শাহিনুর বেগম ও তাছলিমা খাতুন মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়।
সাধারণ সদস্য পদে ১নং ওয়ার্ডে পিন্টু মিয়া, মোক্তার হোসেন, সাঈদ খোকন, স্বপন আলী ও আসাদুল হক, ২নং ওয়ার্ডে লিটন আলী, নুরুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম, আব্দুল হক ও ইছানুল হক, ৩নং ওয়ার্ডে হাফিজুর রহমান, ছানোয়ার হোসেন ও মোমিন মালিতা, ৪নং ওয়ার্ডে আক্কাছ আলী, শাহাজুল হক, আব্দুস সাত্তার শেখ ও নিতাই চন্দ্র পাল ৫নং ওয়ার্ডে মহিদুল ইসলাম, জহিরুল ইসলাম, আসাদুল হক, ফারুক হোসেন ও মোফাজ্জেল হোসেন, ৬নং ওয়ার্ডে আব্দুল হালিম, নজরুল ইসলাম, আসাদুল হক, জিল্লুর রহমান ও সেলিম হোসেন, ৭নং ওয়ার্ডে খাকচার আলী, মতিয়ার রহমান, আলমগীর হোসেন, হাসেম আলী, অলামিন হোসেন ও মহিউদ্দিন, ৮নং ওয়ার্ডে মো. ইসরাফি, রাশিদুল ইসলাম, আব্দুল করিম, মোক্তার হোসেন, মো. আসাদুল্লাহ, জাকির হোসেন ও জাকির হোসেন এবং ৯নং ওয়ার্ডে ফারুক মিয়া, আব্দুল কাদের (আলী কদর), শাহ আলম ও মাসুদ রানা মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়।
এদিকে, আলমডাঙ্গা উপজেলার ডাউকি ইউনিয়ন পরিষদে চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ-বিএনপির মনোনীতসহ পাঁচজন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়। এরা হলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত তরিকুল ইসলাম (নৌকা), বিএনপি মনোনীত ইউনুস আলী (ধানের শীষ), আব্দুল কাদের (স্বতন্ত্র), নিজাম উদ্দিন (স্বতন্ত্র) এবং নাজমুল হুসাইন (স্বতন্ত্র)। খাদিমপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ৪নং ওয়ার্ডের সাধারণ সদস্য পদে আব্দুল আওয়াল জোয়ার্দ্দার, মিরাজুল হক, শিমুল হোসেন ও শহিদুল ইসলামের মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়। আলমডাঙ্গা উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং কর্মকর্তা এমএজি মোস্তফা ফেরদৌস জানান, গতকাল শনিবার বেলা ১১টায় মনোনয়নপত্র বাছাইকালে ডাউকি ও খাদিমপুর ইউপির উপ-নির্বাচনে ৯জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বলে ঘোষণা করা হয়েছে। এসময় আলমডাঙ্গা থানার প্রতিনিধি ও ব্যাংকের প্রতিনিধিবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এ দুটি ইউনিয়নে আগামী ৩ অক্টোবর প্রত্যাহরের শেষ দিন রয়েছে এবং পরদিন প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে। আগামী ২০ অক্টোবর উপ-নির্বাচনের ভোট গ্রহণ করা হবে।
সদর উপজেলার নবগঠিত গড়াইটুপি ইউনিয়ন পরিষদে মোট ভোটার সংখ্যা ১৬ হাজার ৪৪৫ জন। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার ৮ হাজার ২৯১ জন এবং নারী ভোটার ৮ হাজার ৪৫৪ জন।
ডাউকি ইউনিয়ন পরিষদে ভোটার সংখ্যা ১৪ হাজার ৯২০ জন। এরমধ্যে পুরুষ ৭ হাজার ৩৯১ জন এবং নারী ৭ হাজার ৫২৯ জন। খাদিমপুর ইউপির ৪নং ওয়ার্ডের ভোটার সংখ্যা ১ হাজার ৫০০ জন। এরমধ্যে পুরুষ ৭৬৪ জন এবং নারী ৭৩৬ জন।
চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার নবগঠিত গড়াইটুপি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. কামরুল হাসান বলেন, গড়াইটুপি ইউনিয়নে উন্নয়ন কাজে আর্থিক সংশ্লিষ্টতা থাকায় আব্দুল ওয়াহেদের মনোনয়নপত্র বাতিল এবং অন্য সকল প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ বলে ঘোষণা করা হয়েছে।
প্রসঙ্গত: আগামী ২০ অক্টোবর গড়াইটুপিতে সাধারণ নির্বাচন, ডাউকি ও খাদিমপুর ইউপিতে দুটি পদে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More