দুর্ভিক্ষ মোকাবিলায় খাদ্য উৎপাদনে তরুণদের সম্পৃক্ত হতে হবে 

চুয়াডাঙ্গা মেহেরপুরে জাতীয় যুব দিবস পালিত : ঢাকার অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা করোনা মহামারি ও রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থার ভবিষ্যদ্বাণী অনুযায়ী আসন্ন বৈশ্বিক দুর্ভিক্ষ-খাদ্যসংকট মোকাবিলায় খাদ্য উৎপাদন-প্রক্রিয়াজাতকরণে নিজেদের সম্পৃক্ত করতে তরুণদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী গতকাল মঙ্গলবার সকালে ‘জাতীয় যুব দিবস-২০২২’ উদ্বোধন ও ‘জাতীয় যুব পুরস্কার-২০২২’ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির ভাষণে এসব কথা বলেন। তিনি তার সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে যোগ দেন। ‘প্রশিক্ষিত যুব, উন্নত দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ’ এ প্রতিপাদ্যে দিবসটি উপলক্ষে চুয়াডাঙ্গা ও মেহেরপুরের  বিভিন্ন স্থানে জাতীয় যুব দিবস পালিত হয়। এ উপলক্ষে যুব চেক প্রদান, সনদপত্র বিতরণ ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিশ্বের বিভিন্ন সংস্থাও বলছে, বিশ্বে ভবিষ্যতে খাদ্যাভাব ও দুর্ভিক্ষ দেখা দেবে। সে অবস্থায় বাংলাদেশকে এর থেকে মুক্ত রাখতে হলে আমাদের প্রতি ইঞ্চি জমি যেমন আবাদ করতে হবে, তেমনি খাদ্যপণ্য উৎপাদন ও প্রক্রিয়াজাতে বিশেষ ব্যবস্থা নিতে হবে। সে ক্ষেত্রে আমি আমাদের যুবসমাজকে আহ্বান করবো, যেনো আরও উদ্যোগ নেন।’ শেখ হাসিনা বলেন, ‘যার যার এলাকাভিত্তিকও কাজ করতে পারেন। কেননা, খাদ্যপণ্য উৎপাদন ও প্রক্রিয়াজাত করতে পারলে আমরা যেমন নিজেদের চাহিদা মেটাতে পারবো, তেমনি অনেক দুর্ভিক্ষপীড়িত দেশকে সহায়তা করতে পারবো। আমাদের মাটি উর্বর। আর সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে আমাদের জনশক্তি, সেই জনশক্তিকেই আমাদের কাজে লাগাতে হবে।’ যুবকদের সামাজিক মর্যাদা বৃদ্ধির দিকে বর্তমান সরকারের দৃষ্টি উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তাদের মধ্যে নেতৃত্বের যে গুণাবলী ও প্রতিভা আছে, তা যেন বিকশিত হয়। তাদের কর্মক্ষমতা যেন দেশের কাজে লাগে, সে জন্য বিভিন্ন ক্ষেত্রে তার সরকার প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। শেখ হাসিনা বলেন, প্রতি জেলা-উপজেলায় যুব কাউন্সিল গঠন করা হচ্ছে। এর মাধ্যমে তারা যেন কাজ করতে পারে, দেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নে ভূমিকা রাখতে পারে, সেই উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে। কারণ, একটি প্রশিক্ষিত যুবশ্রেণি গড়ে তোলা একান্তভাবে অপরিহার্য। তবে দেশে এখন কত প্রশিক্ষিত যুবশ্রেণি রয়েছে, তার একটি ডেটাবেজ তৈরির প্রক্রিয়া চলছে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, এটা হলে বোঝা যাবে, কারা কর্মসংস্থানের সুযোগ পাচ্ছে, কারা এর বাইরে রয়েছে। তাদেরও তার সরকার কর্মসংস্থানের আওতায় আনতে প্রচেষ্টা গ্রহণ করবে। শেখ হাসিনা এ প্রসঙ্গে আরও বলেন, ‘আমাদের সবচেয়ে বড় শক্তিই আমাদের যুবসমাজ।’

চুয়াডাঙ্গায় জাতীয় যুব দিবস উদ্যাপন করা হয়েছে। চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসন ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের আয়োজনে মঙ্গলবার বেলা ১১টায় চুয়াডাঙ্গার জাফরপুরস্থ যুব ভবনে আলোচনাসভা, যুব ঋণের চেক প্রদান ও সনদপত্র বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আমিনুল ইসলাম খান। বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ (প্রশাসন ও অর্থ) আবু তারেক।

আলমডাঙ্গা ব্যুরো জনিয়েছে, আলমডাঙ্গায় নানা আনুষ্ঠানিকতার মধ্যদিয়ে জাতীয় যুব দিবস পালিত হয়েছে। দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় উদযাপনের লক্ষ্যে যুব র‌্যালি, আলোচনাসভা, যুব ঋণের চেক ও প্রশিক্ষণ কোর্সের সনদপত্র বিতরণ করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার উপজেলা প্রশাসন ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উদ্যোগে উপজেলা চত্বর থেকে বর্ণাঢ্য র‌্যালি শহর প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা পরিষদ মিলনতনে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার রনি আলম নূরের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন পৌর মেয়র আলহাজ হাসান কাদির গণু। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাড খন্দকার সালমুন আহমেদ ডন, উপজেলা মহিলা ভাইস  চেয়ারম্যান কাজী মারজাহান নিতু, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক পৌর কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ শেখ নূর মোহাম্মদ জকু, একাত্তরের অগ্নিসেনা বীর মুক্তিযোদ্ধা মইনুদ্দিন পারভেজ, উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা আব্দুল্লাহিল কাফি, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা ফাতেমা কামরুন নাহার আঁখি প্রমুখ। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা দেওয়ান মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর হোসেন। কলেজিয়েট স্কুলের উপাধ্যক্ষ শামীম রেজার উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন সমাজসেবা অফিসার নাজমুল হোসেন, উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা সোহেল রানা, ইউআরসির ইন্সক্টেটর জামাল হোসেন, বিআরডিবি কর্মকর্তা শায়লা শারমিন, আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা আজিজুল হাকিম, পূবালি ব্যাংকের সিনিয়র অফিসার আমিনুল ইসলাম, অগ্রণী ব্যাংকের সিনিয়র প্রিন্সিপাল অফিসার আনোয়ার জাহিদ, কর্মসংস্থান ব্যাংকের ব্যবস্থাপক আনিসুর রহমান জুয়েল, উপজেলা জনস্বাস্থ্য সহকারি প্রকৌশলী হাসিবুজ্জামান, দেশ সেবা এনজিও সংস্থার নির্বাহী পরিচালক সিরাজুল ইসলাম, উদ্যোক্তা মনোয়ার হোসেন, সহকারী যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা আলাউদ্দিন, তারিকুল ইসলাম ও বাদশা আলম প্রমুখ। আলোচনাসভা শেষে ২৭ প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে ১৫ লাখ ৮০ হাজার টাকার ঋণ বিতরণ করা হয়। এছাড়াও ১০ জন যুবককে প্রশিক্ষণ যুব সনদপত্র  প্রদান করা হয়।

মেহেরপুর অফিস জানিয়েছে, জাতীয় যুব দিবস উপলক্ষে মেহেরপুর জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উদ্যোগে র‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে মেহেরপুর জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর চত্বর থেকে র‌্যালি বের হয়। মেহেরপুর জেলা পরিষদের নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান অ্যাড. আব্দুস সালামের নেতৃত্বে র‌্যালিটি মেহেরপুরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে একই স্থানে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালিতে অন্যান্যের মধ্যে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আশরাফুজ্জামান ভূঁইয়া, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামিরুল ইসলাম, জেলা যুব উন্নয়নের দপ্তরের উপ-পরিচালক কেএম জাহিদ হোসেন, জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক এসএম ওবায়দুল বাশার, কো-অর্ডিনেটর লক্ষন বাহাদুর, সদর উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা বিপ্লব কুমার কুন্ডু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে জাতীয় যুব দিবস উপলক্ষে মেহেরপুর জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উদ্যোগে আলোচনাসভা ও বিভিন্ন প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার দুপুরে মেহেরপুর জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর মিলনাতনে আলোচনাসভা শেষে বিভিন্ন প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। জেলা প্রশাসক ড. মোহাম্মদ মুনসুর আলম খানের সভাপতিত্বে আলোচনাসভা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে জুমের মাধ্যমে প্রধান অতিথি ছিলেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ সুপার মো. রাফিউল আলম। অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক কেএম জাহিদ হোসেন। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মেহেরপুর জেলা বঙ্গবন্ধু শিক্ষা ও গবেষণা পরিষদের সভাপতি প্রফেসর হাসানুজ্জামান মালেক। পরে জাতীয় যুব দিবস উপলক্ষে আয়োজিত দুই দিনব্যাপী ক্রীড়া প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। এসময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আশরাফুজ্জামান ভূঁইয়া, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামিরুল ইসলাম, জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক এস এম ওবায়দুল বাশার, কো-অর্ডিনেটর লক্ষন বাহাদুর, সদর উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা বিপ্লব কুমার কুন্ডু প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মুজিবনগর প্রতিনিধি জানিয়েছেন, মুজিবনগর পালিত হলো জাতীয় যুব দিবস। দিবসটি উপলক্ষে মুজিবনগর উপজেলা প্রশাসন ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর মুজিবনগরের আয়োজনে গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০টায় মুজিবনগর উপজেলা পরিষদ থেকে একটি শোভাযাত্রা বের হয়ে সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা পরিষদে এসে শেষ হয়। পরে উপজেলা পরিষদ হলরুমে যুব দিবসের আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা রকিব উদ্দীনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন নিবার্হী অফিসার অনিমেষ বিশ্বাস। এ সময়  উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আব্দুর রব, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার আলাউদ্দীন, মুজিবনগর প্রেসক্লাবের সভাপতি হাজি ওমর ফারুক প্রিন্সসহ উপজেলা পরিষদের বিভিন্ন কর্মকর্তা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর মুজিবনগরের বিভিন্ন অঞ্চলের যুব সদস্য সদস্যাগণ উপস্থিত ছিলেন। আলোচনাসভা শেষে ২০ জন যুব সদস্যদের মধ্যে যুব ঋণের চেক বিতরণ করা হয়।

হরিনাকু-ু প্রতিনিধি জানিয়েছেন, ঝিনাইদহের হরিণাকু-ু উপজেলা প্রশাসন ও যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের আয়োজনে জাতীয় যুব দিবস উদযাপনে র‌্যালি, আলোচনাসভা, যুবঋণ ও সনদপত্র বিতরণসহ যুব প্রশিক্ষণের উদ্বোধন করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকালে দিবসটি উদযাপনের জন্য এক বর্ণাঢ্য র‌্যালি শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুস্মিতা সাহার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন  জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর হোসাইন। উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা মুন্সী ফিরোজা সুলতানার সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন হরিণাকু-ু থানার ওসি মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ শরিফুল ইসলাম প্রমুখ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা বিল্লাল হোসেন। এছাড়াও ইউপি চেয়ারম্যান কামাল হোসেন, মঞ্জুর রাশেদ, ইমাম সমিতির সভাপতি মাওলানা ময়নদ্দীন আহম্মেদ, উপজেলা প্রোগ্রামার ওয়াসিকুর রহমান উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা শেষে ১৮ যুব নারী ও পুরুষদের মাঝে এক লাখ পঞ্চাশ হাজার টাকার যুব ঋণের চেক ও সনদপত্র বিতরণ করেন।

মহেশপুর প্রতিনিধি জানিয়েছেন, ঝিনাইদহের মহেশপুরে জাতীয় যুব দিবস পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে র‌্যালি, আলোচনাসভা, যুব ঋণের চেক ও প্রশিক্ষণার্থীদের মধ্যে সনদপত্র বিতরণ করা হয়। মহেশপুর উপজেলা যুব উন্নয়নের আয়োজনে দিবসটি উপলক্ষে মঙ্গলবার সকালে উপজেলা পরিষদ সম্মেলন কক্ষে আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নয়ন কুমার রাজবংশীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান ময়জদ্দীন হামীদ। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হাসিনা খাতুন হেনা, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা নির্মল কান্তি ম-ল, ইউপি চেয়ারম্যান মাঝহারুল ইসলাম স্বপন প্রমুখ।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More