বিপিএম পদক পাচ্ছেন চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ পুলিশের সর্বোচ্চ পদক বিপিএম পদক পাচ্ছেন চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম। ২০২০ ও ২০২১ সালে কর্মস্থলে অসীম সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ চার ক্যাটাগরিতে মোট ২৩০ পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) ও রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম) দেয়া হচ্ছে। খবরটি চুয়াডাঙ্গায় পৌঁছুলে বিভিন্ন সংগঠন ও রাজনৈতিক ব্যক্তিরা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলামকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছে। গতরাতেই আলমডাঙ্গা থানার ওসি সাইফুল ইসলাম ফুলেল শুভেচ্ছা জানান।
বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সহকারী সচিব (পুলিশ-২ শাখা) সিরাজাম মুনিরা স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়। প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, ২০২১ সালে অসীম সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতি হিসেবে ১৫ জন পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) ও ২৫ জনকে রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম) দেওয়া হচ্ছে। সেই সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ মামলার রহস্য উদ্ঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা, সততা ও শৃঙ্খলামূলক আচরণের মাধ্যমে প্রশংসনীয় অবদানের জন্য ২৫ জন পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) সেবা ও ৫০ জনকে রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম)-সেবা দেয়া হচ্ছে। একইভাবে ২০২০ সালে অসীম সাহসিকতা ও বীরত্বপূর্ণ কাজের স্বীকৃতি হিসেবে ১৫ জন পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম) ও ২৫ জনকে রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম) দেয়া হচ্ছে। গুরুত্বপূর্ণ মামলার রহস্য উদ্ঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা, সততা ও শৃঙ্খলামূলক আচরণের মাধ্যমে প্রশংসনীয় অবদানের জন্য ২৫ জন পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ পুলিশ পদক (বিপিএম)-সেবা ও ৫০ জনকে রাষ্ট্রপতির পুলিশ পদক (পিপিএম)-সেবা দেয়া হচ্ছে।
আলমডাঙ্গা ব্যুরো জানিয়েছে, চুয়াডাঙ্গা জেলার পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম বিপিএম পদকে ভূষিত হওয়ায় আলমডাঙ্গা থানা পুলিশের পক্ষ থেকে অফিসার ইনচার্জ সাইফুল ইসলাম ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। গতরাতে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলামের কার্যালয়ে উপস্থিত এ শুভেচ্ছা জানান। পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম চুয়াডাঙ্গা জেলা ২০১৯ সালের ৯ সেপ্টেম্বর যোগদান করেন। যোগদানের পর থেকে এ পর্যন্ত তার ভাল কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ বিপিএম (সেবা) পদক প্রাপ্ত হয়েছে। ২০ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে সিনিয়র সহকারী সচিব সিরাজুম মুনিরা স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে গুরুত্বপূর্ণ মামলার রহস্য উদঘাটন, অপরাধ নিয়ন্ত্রণ, দক্ষতা, কর্তব্যনিষ্ঠা, সততা ও শৃঙ্খলামূলক আচরণের মাধ্যমে প্রশংসনীয় অবদানের জন্য ২৫ জন পুলিশ সদস্যকে বাংলাদেশ লিশ পদক (বিপিএম) সেবা প্রদান করা হয়েছে। ফুলের শুভেচ্ছা জানানোর সময় উপস্থিত ছিলেন আলমডাঙ্গা থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত তুহিনুজ্জামান, পুলিশ পরিদর্শক অপারেশন একরামুল হোসাইন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More