ইউরোর যে দল যেদিন যার মুখোমুখি হচ্ছে

 

ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের কোয়ার্টার-ফাইনালের লাইনআপ চূড়ান্ত। যেখানে সবচেয়ে আকর্ষণীয় ম্যাচের সম্ভাবনা বেলজিয়াম ও ইতালির মুখোমুখি লড়াইকে ঘিরে। ফেভারিটের তকমা নিয়ে মহাদেশীয় প্রতিযোগিতাটিতে এসে শেষ ষোলো থেকেই বিদায় নিয়েছে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ও গতবারের ফাইনালিস্ট ফ্রান্স। গত আসরের চ্যাম্পিয়ন পর্তুগালের যাত্রাও থেমে গেছে নকআউট পর্বের শুরুতে। ছিটকে গেছে জার্মানি ও নেদারল্যান্ডসও। শেষ আটের টিকেট পেয়েছে ইতালি, ডেনমার্ক, চেক রিপাবলিক, বেলজিয়াম, স্পেন, সুইজারল্যান্ড, ইংল্যান্ড ও ইউক্রেন।
সেমি-ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে রাশিয়ার সেন্ত পিতার্সবুর্গে আগামী শুক্রবার বাংলাদেশ সময় রাত ১০টায় সুইজারল্যান্ডের মুখোমুখি হবে স্পেন। আসরে স্পেনের শুরুটা ভালো ছিল না। গ্রুপ পর্বে সুইডেনের সঙ্গে গোলশূন্য ড্রয়ের পর পোল্যান্ডের বিপক্ষে ১-১ সমতায় শেষ করে ম্যাচ। তবে শেষ রাউন্ডে স্লোভাকিয়াকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে ছন্দে ফেরে প্রতিযোগিতার তিনবারের চ্যাম্পিয়নরা। এরপর শেষ ষোলোয় অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো উত্তেজনায় ঠাসা ম্যাচে ক্রোয়েশিয়াকে ৫-৩ গোলে হারিয়ে পরের ধাপে ওঠে লুইস এনরিকের দল। গড়ে প্রথম দল হিসেবে ইউরোয় টানা দুই ম্যাচে পাঁচ বা এর বেশি গোল করার কীর্তি। চমক দেখায় সুইজারল্যান্ড। চার সেরা তৃতীয় দলের একটি হয়ে নকআউট পর্বে পা রাখে তারা। শেষ ষোলোয় ফ্রান্সের বিপক্ষে ৩-১ গোলে পিছিয়ে পড়ার পর শেষ ৯ মিনিটে দুই গোল করে ম্যাচ অতিরিক্ত সময়ে নেয় সুইসরা। পরে টাইব্রেকারে ফরাসিদের ৫-৪ গোলে হারিয়ে ৬৭ বছরের মধ্যে প্রথম কোনো মেজর টুর্নামেন্টের কোয়ার্টার-ফাইনালে ওঠে ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ের ১৩ নম্বর দলটি। শেষ আটের পরের ম্যাচে মিউনিখের আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় বাংলাদেশ সময় শুক্রবার রাত ১টায় ইতালির বিপক্ষে লড়বে ফিফা র‍্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষ দল বেলজিয়াম।
গ্রুপ পর্বে তিন ম্যাচের সবগুলোই জেতা ইতালিকে কঠিন পরীক্ষা দিতে হয় শেষ ষোলোয়। অস্ট্রিয়ার বিপক্ষে অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো ম্যাচে ২-১ গোলে জিতে পরের ধাপে পা রাখে রবের্তো মানচিনির দল। নিজেদের রেকর্ড টানা ৩১ ম্যাচে অপরাজিত আছে ইতালিয়ানরা। তাদের শেষ আটের প্রতিপক্ষ বেলজিয়ামও গ্রুপ পর্বে জেতে তিন ম্যাচেই। শেষ ষোলোয় পর্তুগালকে ১-০ গোলে হারায় রবের্তো মার্তিনেসের দল। তৃতীয় কোয়ার্টার-ফাইনালে আজারবাইজানের বাকু অলিম্পিক স্টেডিয়ামে শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত ১০টায় চেক রিপাবলিকের বিপক্ষে খেলবে ডেনমার্ক। প্রথম দুই ম্যাচ হেরে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায়ের শঙ্কায় পড়েছিল ডেনিশরা। তবে শেষ রাউন্ডে রাশিয়াকে ৪-১ গোলে হারিয়ে গ্রুপ রানার্সআপ হিসেবে শেষ ষোলোয় জায়গা করে নেয় তারা। এরপর ওয়েলসকে ৪-০ গোলে উড়িয়ে নিশ্চিত করে শেষ আটের টিকেট। চেপ রিপাবলিক নকআউটে আসে তৃতীয় হওয়া সেরা চার দলের একটি হয়ে। শেষ ষোলোয় তারা অবিশ্বাস্যভাবে হারিয়ে দেয় গ্রুপ পর্বে তিন ম্যাচের সবগুলো জিতে উড়তে থাকা নেদারল্যান্ডসকে। দ্বিতীয়ার্ধে ১০ জনে পরিণত হওয়া ডাচদের বিপক্ষে তাদের জয় ২-০ গোলে। চতুর্থ কোয়ার্টার ফাইনালে লড়বে ইংল্যান্ড ও ইউক্রেন। রোমের স্তাদিও অলিম্পিকোয় ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় শনিবার রাত ১টায়। দুই জয় ও এক ড্রয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে নকআউটে ওঠে ইংল্যান্ড। শেষ ষোলোয় দ্বিতীয়ার্ধের দুই গোলে জার্মানিকে বিদায় করে দেয় গ্যারেথ সাউথগেটের দল। আসরে চার ম্যাচে এখনও তারা কোনো গোল হজম করেনি। প্রতিপক্ষের জালে বল পাঠিয়েছে চারবার।
আর ইউক্রেন ছয় গ্রুপের তৃতীয় হওয়া সেরা চার দলের একটি হয়ে নকআউট পর্বে পা রাখে। সেখানে তাদের প্রতিপক্ষ ছিল ‘ই’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন সুইডেন। তাদেরকে অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো ম্যাচে ২-১ গোলে হারিয়ে কোয়ার্টার-ফাইনালে টিকেট পায় আন্দ্রে শেভচেঙ্কোর দল ইউক্রেন।
কোয়ার্টার-ফাইনালের লড়াই:

সুইজারল্যান্ড-স্পেন

বেলজিয়াম-ইতালি

চেক রিপাবলিক-ডেনমার্ক

ইংল্যান্ড- ইউক্রেন

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More