ভয়ঙ্কর এক ঝড় অপেক্ষা করছে বার্সেলোনার জন্য

মাথাভাঙ্গা মনিটর: বিশ্বের অন্যতম ধনী ক্লাব হয়েও মাত্র এক মাস খেলা বন্ধ থাকায় খেলোয়াড়দের বেতন কমানোর পথে হাঁটতে হয়েছে বার্সেলোনাকে। যে কারণে প্রশ্ন উঠেছে, বার্সার আর্থিক অবস্থা নিয়েও। করোনাভাইরাসের এই সংকটের মধ্যে ক্লাবের নতুন সভাপতি হওয়ার দৌড়ে ভিক্টর ফন্ত দাবি করেছেন আর্থিক ও নৈতিতভাবে দেউলিয়া হওয়ার ঝুঁকিতে আছে বার্সেলোনা। ক্লাব পরিচালনায় বর্তমান সভাপতি হোসে মারিয়া বার্তোমেউয়ের ব্যর্থতার দরুণ সম্প্রতি একসঙ্গে পদত্যাগ করেছেন ছয় বোর্ড পরিচালক। অধিনায়ক লিওনেল মেসিসহ দলের সিনিয়র খেলোয়াড়রাও বেশ কয়েকবার বিদ্রোহ করেছেন বার্তোমেউয়ের বিরুদ্ধে। এজন্য ক্লাবের অর্থেই একটি প্রতিষ্ঠানকে মেসিদের বিরুদ্ধে কুৎসা রটানোর কাজে নিয়োগ দিয়েছিলেন বার্সা সভাপতি! সম্প্রতি এ নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে। সবমিলিয়ে কোণঠাসা হয়ে পড়েছে বার্তোমেউ। আগামী সভাপতি নির্বাচনে তার বিপক্ষে লড়বেন ফন্ত।
নির্বাচনের আগে এক খোলা চিঠিতে ক্লাবের দুর্দশার সার্বিক চিত্র তুলে ধরেন তিনি, ভয়ংকর এক ঝড় অপেক্ষা করছে বার্সেলোনার জন্য। ক্লাবের ইতোহাসে সেরা ফুটবল প্রজন্মের বিদায়ের জন্য প্রস্তুত হতে হবে…। তিনি আরও বলেন, আমরা এখন এমন এক মহামারীর মধ্যে আছি, যা বিশ্বকে থমকে দিয়েছে। এটা জীবনের সবকিছুতেই প্রভাব ফেলবে। এ অবস্থায় আমরা ক্লাবের কর্মকাÐে একের পর এক লজ্জাকর অধ্যায়ের জন্ম দেখছি। নতুন কোনো ঘটনা এসে পুরনো লজ্জা আড়াল করে দিচ্ছে। … এর সঙ্গে লক্ষ্যভ্রষ্ট ক্রীড়া প্রকল্প, বোর্ডে ভাঙন ও মহামারীর কারণে আয় কমে যাওয়ার ঘটনা যোগ করুন। এর পরিণাম হল আর্থিকভাবে দেউলিয়া হয়ে যাওয়া এবং ক্লাবের নৈতিক স্তম্ভের চরম অবক্ষয়। খেলা শেষ।’

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More