ঝিনাইদহ গান্নার বাঁধাকপি রফতানি হচ্ছে মালয়েশিয়ায়

বাজার গোপালপুর প্রতিনিধি: ঝিনাইদহ সদর উপজেলার গান্নার বাঁধাকপি বিদেশে রফতানি হচ্ছে। সিএসএম ইন্টারন্যাশনাল নামের একটি প্রতিষ্ঠান সরাসরি কৃষকদের কাছ থেকে বাঁধাকপি কিনে মালয়েশিয়ায় রফতানি করছে। গত ২৪ জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত প্রতিষ্ঠানটি ৪’শ টন বাঁধাকপি কৃষকদের কাছ থেকে ক্রয় করেছেন।
ঝিনাইদহ সদর উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ সবজি উৎপাদন এলাকা গান্না মাঠের নিরাপদ সবজি জেলা কৃষি অফিস অনুমোদনক্রমে প্রতিষ্ঠানটি ক্রয় করে রফতানি করছে। কৃষি অফিসের সহায়তায় বাঁধাকপি সংগ্রহ এবং প্রথমে কৃষকের নিকট থেকে পরে শাদা কাগজে মুড়িয়ে তাদের ব্যবহৃত বস্তাভর্তি করে রফতানি উপযোগী করা হচ্ছে। মাঠ থেকে এমনভাবে বাঁধাকপি বিক্রি করতে পেরে চাষিরা অনেক খুশি ও লাভের আশা করছেন।
কৃষক হাসান আলী বলেন, বিঘাপ্রতি জমিতে প্রায় সাড়ে ৪’হাজার বাঁধাকপির চারা রোপণ করা যায়। এখানে তাদের প্রায় ২৫-২৬ হাজার টাকা খরচ হয়। এ বছর প্রথমে দাম পাওয়া গেলেও বর্তমানে লোকসান হচ্ছে। তিনি আরও বলেন, যদি পূর্ব প্রস্তুতি নিয়ে এমনভাবে সবজি রফতানি করা যায়, তবে লাভ হবে কৃষকের এবং বাঁধাকপি চাষে আগ্রহ বাড়বে।
রফতানিকারক প্রতিষ্ঠানের পরিচালক জাহিদুল ইসলাম বলেন, বর্তমান বাজার দাম দিয়ে কৃষকের জমি থেকে বাঁধাকপি কেনা হচ্ছে। আগামী বছর আরও বেশি সবজি রফতানি আশা ব্যক্ত করেন তিনি।
জেলা কৃষি সম্প্রসারণ বিভাগের উপপরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) বিজয় কৃষ্ণ হালদার বলেন, কৃষি বিভাগ সবসময় নিরাপদ সবজি চাষে উদ্বুদ্ধ করে আসছে। নিরাপদ সবজি রফতানি করে প্রচুর বিদেশি মুদ্রা অর্জন করা সম্ভব। যে প্রতিষ্ঠান সবজি ক্রয় করে রফতানি করছে, তাদের কয়েকজন কর্মকর্তার সাথে আমি ব্যক্তিগত কৃষকদের সুবিধা এবং অসুবিধা নিয়ে কথা বলেছি। তারা যদি এখানকার কৃষকদের নিকট থেকে সবজি নিতে চান, তাহলে অবশ্যই কৃষকদেরকে আগে কন্টাক্ট করতে হবে এবং সবজি ক্রয়ের বিষয়ে দাম ও ক্রয়ের এনশিউর করতে হবে। তাহলে কৃষকরা লাভবান হবেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More