ঢামেকের আইসিইউতে আগুনে ৩ জনের মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার: ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের নতুন ভবনের তৃতীয় তলায় কোভিড ইউনিটের নিবিড় পরিচর্যাকেন্দ্রে (আইসিইউ) আগুনে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার সকাল ৮টা ১৩ মিনিটের দিকে এ আগুনের ঘটনা ঘটে। ওই সময় সেখানে চিকিৎসা চলছিলো ১৪ রোগীর। মাত্র ১০-১৫ মিনিটে কক্ষে থাকা চিকিৎসা সরঞ্জামসহ মূল্যবান জিনিসপত্র পুড়ে যায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট এসে আগুন নেভায়।
জানা যায়, কেউ আগুনে না পুড়লেও তীব্র কালো ধোঁয়া আর অক্সিজেনের অভাবে রোগীরা ছটফট করছিলেন। নার্স, বয় এবং স্বজনদের সহযোগিতায় রোগীদের বের করে একই তলার সিসিইউ ওয়ার্ডে রাখা হয়। ততক্ষণে প্রাণ হারান তিনজন। আহতদের মধ্যে তিনজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। এ ঘটনায় ৯ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।
মৃতরা হলেন-চাঁদপুরের পিডিবির প্রকৌশলী কাজী গোলাম মোস্তফা (৬৫), টাঙ্গাইলের কিশোর চন্দ্র রায় (৬৭) ও মানিকগঞ্জের মাদরাসাশিক্ষক আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ (৪৯)। ঢামেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল নাজমুল হক সাংবাদিকদের বলেন, ঘটনার পর আহত ১১ রোগীকে দ্রুত শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্ল¬াস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আইসিইউ এইচডিইউতে স্থানান্তর করা হয়েছে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।
ঢামেক হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. আলাউদ্দিন আল আজাদ বলেন, আমরা ঘটনাস্থল পরির্দশন করেছি। ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। যে ৩ জন মারা গেছেন, তারা এমনিতেই ক্রিটিক্যাল অবস্থায় ছিলেন। যারা মারা গেছেন এবং যাদের স্থানান্তর করা হয়েছে তাদের কেউই আগুনে পুড়েননি। বৈদ্যুতিক গোলযোগের কারণে আইসিইউ মেশিন থেকে আগুন লাগতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More