রিখটার স্কেলে ৫.৮ মাত্রার ভূমিকম্পে কাঁপল দেশ

স্টাফ রিপোর্টার: রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে। শুক্রবার ভোরে রিখটার স্কেলে ৫.৮ মাত্রার এই ভূমিকম্প অনুভূত হয়। যার স্থায়িত্ব ছিল প্রায় ৩০ সেকেন্ড। বাংলাদেশের আবহাওয়া অধিদপ্তর জানায়, ভোর ৫টা ৪৫ মিনিট ৪১ সেকেন্ডে এই কম্পন অনুভূত হয়। মাত্রা ছিল রিখটার স্কেলে ৫ দশমিক ৮। ভারত ও মিয়ানমার সীমান্তের কাছে ছিল কেন্দ্রের অবস্থান, যা ঢাকা থেকে পূর্ব-দক্ষিণ পূর্ব দিকে প্রায় ৩৪৭ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছিল। রাজধানী ঢাকাসহ চট্টগ্রাম, নোয়াখালী, ফেনী, বান্দরবান, জামালপুর, খুলনা, বাগেরহাট, কুড়িগ্রাম, সিলেট, বরিশাল ও রাজশাহীতে ভূকম্পন অনুভূত হয়েছে। ভূমিকম্পে বিভিন্ন স্থানে ভবন কেঁপে ওঠে। এতে দেশের কোথাও বড় ধরনের কোনো ক্ষয়ক্ষতির তথ্য পাওয়া যায়নি। তবে অনেকে ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে পড়েন।
এদিকে ইউরোপিয়ান মেডিটেরিয়ান সিসমোলজিক্যাল সেন্টার বলছে, ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল চট্টগ্রাম থেকে ১৭৫ কিলোমিটার পূর্বে। ভূপৃষ্ঠ থেকে গভীরতা ছিল ৪২ কিলোমিটার। ইউরোপিয়ান সিসমোলজিক্যাল আর্থকোয়াক সেন্টার (ইএসএমসি) বলছে, ভূমিকম্পটির উৎপত্তি মিয়ানমার-ভারত সীমান্তে। রিখটার স্কেলে যার মাত্রা ছিল ৫.৮। ভূপৃষ্ঠ থেকে ৬০ কিলোমিটার গভীরে ছিল এর অবস্থান। তবে মার্কিন ভূতাত্ত্বিক জরিপ সংস্থার (ইউএসজিএস) তথ্যমতে, ভূমিকম্পটির উৎপত্তিস্থল মিয়ানমারের হাখা শহর থেকে ১৯ কিলোমিটার উত্তর উত্তর-পশ্চিমে এবং রিখটার স্কেলে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৬.১। ভূপৃষ্ঠ থেকে ৩২.৮ কিলোমিটার গভীরে ছিল এর অবস্থান। ভারত, ভুটান ও চীনের কিছু অংশেও কম্পনটি অনুভূত হয়েছে বলে জানিয়েছে ইউএসজিএস।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More