সভাপতি ইলিয়াস কাঞ্চন সম্পাদক জায়েদ খান

চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন প্রখ্যাত অভিনেতা ইলিয়াস কাঞ্চন। তিনি পেয়েছেন ১৯১ ভোট। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সর্বশেষ কমিটির সভাপতি মিশা সওদাগর পেয়েছেন ১৪৮ ভোট। আর সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচিত হয়েছেন চিত্রনায়ক জায়েদ খান। টানা তৃতীয়বার এ পদে নির্বাচিত হলেন তিনি। এ নায়ক পেয়েছেন ১৭৬ ভোট। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী চিত্রনায়িকা নিপুণ পেয়েছেন ১৬৩ ভোট। সহসভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন মনোয়ার হোসেন ডিপজল (২১৯) ও চিত্রনায়ক মাসুম পারভেজ রুবেল (১৯১)। একই পদে চিত্রনায়ক রিয়াজ ও ডিএ তায়েব প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছিলেন। তারা পেয়েছেন যথাক্রমে ১৫৬ ও ১১২ ভোট। অন্যান্য পদে নির্বাচিত হয়েছে সহসাধারণ সম্পাদক চিত্রনায়ক সাইমন সাদিক (২১২), সাংগঠনিক সম্পাদক চিত্রনায়িকা শাহনূর (১৮৪), আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক চিত্রনায়ক জয় চৌধুরী (২০৫), দফতর ও প্রচার সম্পাদক আরমান (২৩২), সংস্কৃতি ও ক্রীড়া সম্পাদক চিত্রনায়ক ইমন (২০৩), কোষাধ্যক্ষ আজাদ খান (১৯৩)। কার্যকরী সদস্য পদে জয়ী হয়েছেন অঞ্জনা (২২৫), অরুণা বিশ্বাস (১৯২), অমিত হাসান (২২৭), আলীরাজ (২০৩), কেয়া (২১২), চুন্নু (২২০), জেসমিন (২০৮), ফেরদৌস (২৪০), মৌসুমী (২২৫) ও সুচরিতা (২০১)। এ পদের জন্য লড়াই করেছিলেন ২৪ জন। পরাজিতরা হলেন আফজাল শরীফ, আসিফ ইকবাল, গাঙ্গুয়া, ডন, নাদির খান, নানা শাহ, পরীমনি, বাপ্পারাজ, হরবোলা, শাকিল খান, সাংকো পাঞ্জা, সীমান্ত ও হাসান জাহাঙ্গীর।
এবারের নির্বাচনে ভোটার ছিলেন ৪২৮। শুক্রবার ভোট দিয়েছেন ৩৬৫ জন। বাতিল হয়েছে ১০ ভোট। প্রধান নির্বাচন কমিশনার হিসাবে নির্বাচন পরিচালনা করেছেন পীরজাদা শহীদুল হারুন। তার সঙ্গে কমিশনার ছিলেন বিএইচ নিশান ও বজলুর রাশেদ চৌধুরী। এবারের নির্বাচনে দুটি প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছে। মিশা-জায়েদ প্যানেল থেকে ১০ জন এবং কাঞ্চন-নিপুণ প্যানেল থেকে ১১ জন নির্বাচিত হন।
এদিকে এবারের নির্বাচনে প্রথমবার সাধারণ সম্পাদক পদে অংশ নিয়েছিলেন চিত্রনায়িকা নিপুণ আকতার। শুরুতেই তিনি চমক দেখিয়েছেন। প্রকাশিত ফলাফলে দেখা গেছে, মাত্র ১৩ ভোটের ব্যবধানে জায়েদ খানের কাছে হেরে গেছেন তিনি। জানা গেছে, যে ১০টি ভোট বাতিল হয়েছে সবগুলোতেই তার পক্ষে সিল দেয়া ছিলো। সে হিসাবে মাত্র তিন ভোটে হেরে গেছেন তিনি। তবু এই ফলাফলে সন্তুষ্ট নন এ নায়িকা। তাই ফলাফলে অসন্তোষ জানিয়ে আবার ভোট গণনার জন্য গতকাল শনিবার দুপুরে আপিল করেছেন তিনি। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার পীরজাদা হারুন। তিনি বলেন, ‘পাঁচ হাজার টাকা জমা দিয়ে নিপুণ আক্তার আপিল বিভাগের কাছে আবেদন করেছেন। নিয়ম অনুসারে আপিল বিভাগ আবার ভোট গণনা করে ফলাফল জানাবেন।’ তবে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত শনিবার সন্ধ্যায় জানা যায়, আগের ফলাফল বহাল রেখে আপিল নিষ্পত্তি করা হয়েছে। নিপুণের উপস্থিতিতে পুনরায় ভোট গণনা করা হয়। এরপর তিনি আপিলের রায় মেন নেন।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More