ঈদের দিন চুয়াডাঙ্গায় সড়কে প্রাণ গেলো ২ জনের

 

চুয়াডাঙ্গায় পৃথক সড়ক দূর্ঘটনায় বৃদ্ধসহ দুজন নিহত হয়েছে। রোববার (১০ জুলাই) বেলা ১১ টা থেকে ১ টা পর্যন্ত দুই ঘন্টার ব্যবধানে সদর ও দামুড়হুদা উপজেলায় এদূর্ঘটনা ঘটে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দূর্ঘটনা কবলিত সংশ্লিষ্ট দুই থানা কর্তৃপক্ষ।
নিহত ব্যক্তিরা হলেন, চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার শংকরচন্দ্র ইউনিয়নের জাফরপুর গ্রামের মৃত খোকা আলীর ছেলে ফরজ আলী (৭০) ও দামুড়হুদা উপজেলার পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের সড়াবাড়িয়া গ্রামের পূর্বপাড়ার আব্দুল গনির ছেলে এনামুল হক।
চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) সঞ্জয় চক্রবর্তী বলেন , ঈদের দিন বেলা ১১ টার দিকে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার জাফরপুরস্থ বিজিবি ক্যাম্পের সামনে থেকে স্থানীয়রা ফরজ আলী (৭০) নামে এক বৃদ্ধকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। আধাঘন্টা পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে দ্রুতগতির কোন মোটরসাইকেল বা যানবহন বৃদ্ধকে ধাক্কা দিয়ে পালিয়ে যায়। বিষয়টি তদন্ত পূর্বক উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের নির্দেশনা অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।
দর্শনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এএইচএম লুৎফুল কবীর বলেন, ঈদের দিন দুপুর ১ টার দিকে বন্ধুর মোটরসাইকেল নিয়ে এনামুল সহ দুজন নিয়ে ঘুরতে বের হয়। এসময় সড়াবাড়িয়া-নতুন গ্রামের মাঝামাঝি বাজারের নিকট পৌছালে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। স্থানীয়রা তাদেরকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক চালক এনামুলকে মৃত ঘোষনা করেন।
চুয়াডাঙ্গায় সদর হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. উৎপলা বিশ্বাস বলেন, বৃদ্ধ ফরজ আলীর মাথায় প্রচণ্ড আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছিল। হাসপাতালের আসার আধাঘন্টা পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়। এছাড়া এনামুলকে হাসপাতালে নিয়ে আসলে পরিক্ষা-নিরিক্ষার পর মৃত ঘোষনা করা হয়েছে। মরদেহ হিমঘরে রাখা হয়েছে। সংশ্লিষ্ট দুই থানাকে জানানো হয়েছে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More