চুয়াডাঙ্গায় করোনা ভাইরাসে আরও একজনের মৃত্যু

দুদিনে নতুন শনাক্ত একজন : নতুন ২৭ জনের নমুনা সংগ্রহ

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের মধ্যে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪৫ জন। এর মধ্যে চুয়াডাঙ্গাতেই মারা গেছেন ৪০জন, ঢাকায় মারা গেছেন ৫জন। গতকাল বুধবার চুয়াডাঙ্গায় করোনা আক্রান্ত নতুন কেউ শনাক্ত না হলেও গতপরশু মঙ্গলবার আরও একজন কোভিড-১৯ পজেটিভ হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৬শ ৫৭ জন।
চুয়াডাঙ্গার আলমডাঙ্গা উপজেলার বড় গাংনী মাস্টারপাড়ার সাফাউদ্দিন করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী ছিলেন। তার নমুনা পরীক্ষা করে কোভিড-১৯ পজেটিভ হলে তাকে তার নিকটজনেরা চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে ভর্তি করান। হাসপাতালের রেডজোনে আইসোলেশনে ছিলেন তিনি। গতকাল বুধবার ভোরে মৃত্যুবরণ করেন সাফা উদ্দীন। তার বয়স হয়েছিলো ৬৫ বছর। এছাড়া গতকাল বুধবার চুয়াডাঙ্গা স্বাস্থ্য বিভাগ আরও ২৭ জনের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ল্যাবে প্রেরণ করেছে। গতকাল স্বাস্থ্য বিভাগের হাতে ১৬ জনের নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট আসে। এ ১৬ জনের মধ্যে একজনেরও কোভিড-১৯ পজেটিভ হয়নি। তবে গত মঙ্গলবার ১৭ জনের নমুনা পরীক্ষার ফলাফলে ১ জনের করোনা পজেটিভ হয়। তিনি দর্শনা কলেজপাড়ার বাসিন্দা। গতরাতে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালের রেডজোনে ৩ জন বাড়িতে ১৪ জন আইসোলেশনে ছিলেন। গত দুদিনে আর কেউ সুস্থ হননি। ফলে মোট সুস্থর সংখ্যা ১ হাজার ৫শ ৯৪জনই রয়েছে।
আমাদের আসমানখালী প্রতিনিধি জানিয়েছেন, আলমডাঙ্গা উপজেলার গাংনী ইউনিয়নের বড়গাংনী গ্রামের মাস্টারপাড়ার মৃত নবীছদ্দীন অরফে নফর আলীর ছেলে সাফা উদ্দীন (৬৫) বেশ কিছুদিন যাবৎ অসুস্থায় ভুগছিলেন। পরিবারের সদস্যরা তাকে দিন দশেক আগে চুয়াডাঙ্গার সদর হাসপাতালে ভর্তি করান। বুধবার ভোর সাড়ে ৬টার দিকে তার মৃত্যু হয়। সরকারিভাবে তার স্বাস্থ্যবিধি মেনে শেষ গোসল দিয়ে, বেলা ১টার দিকে তার নিজ গ্রামের ঈদগাহ ময়দানে মরদেহ নেয়া হয়। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মরহুমের নামাজে জানাজা শেষে গ্রাম্যকবর স্থানে দাফনকার্য সম্পন্ন করা হয়। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ২ ছেলে ১ মেয়েসহ অসংখ্য গ্রণগ্রাহী রেখে গেছেন। এ বিষয়ে গাংনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান আবু তাহের আবু বলেন মহামারী করোনা ভাইরাস থেকে আমরা সবাই সাবধান না হলে আমাদেরকে আরও অনেকেরই হারাতে হতে পারে। বড়গাংনী বাজার পুলিশ তদন্তকেন্দ্রের বিট অফিসার সাইদুজ্জামান বলেন, বিশ্বজুড়ে এখন মহামারী করোনা ভাইরাস। প্রতিদিন করোনা ভাইরাসে আক্রন্তের হার বৃদ্ধি পাচ্ছে। সকলে সচেতন না হলে বিপদ আরও বাড়বে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More