চুয়াডাঙ্গায় চালকের চোখ-মুখ বেঁধে ইজিবাইক ছিনতাই

বিক্রির সময় ঝিনাইদহ থেকে দুই ছিনতাইকারী আটক

স্টাফ রিপোর্টার: ছিনতাই করা ইজিবাইকসহ দুজনকে আটক করেছে চুয়াডাঙ্গা পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে ঝিনাইদহের আরাপপুর মোড় এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। আটককৃতরা হলো চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার পিরোজখালী গ্রামের আশাদুল হক ওরফে আসান আলীর ছেলে মো. সাগর (২৫) ও কুষ্টিয়ার ইবি থানাধীন কন্দর্পদিয়া গ্রামের বজলুর রহমানের ছেলে ওমর ফারুক (৩৯)। তারা গত বুধবার রাতে চুয়াডাঙ্গার টেঙরামারি গ্রাম থেকে চালককে হাত-পা বেঁধে ভুট্টাক্ষেতে ফেলে রেখে ইজিবাইক ছিনিয়ে নেয়। ছিনতাইয়ের ঘটনায় দায়েকৃত মামলায় গতকাল শুক্রবার আদালতে সোপর্দ করলে তারা স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।

পুলিশ জানায়, চুয়াডাঙ্গা শহর থেকে গত বুধবার সদর উপজেলার মোমিনপুর ইউনিয়নের আমিরপুর গ্রামে যাওয়ার কথা বলে চালক বাবুর ইজিবাইক ভাড়া করেন সাগর এবং ওমর ফারুক। ১৫০ টাকা ভাড়াও চুক্তি করে তারা। আমিরপুর যাওয়ার পথে টেঙরামারি গ্রামের বেলের মাঠ এলাকায় পৌঁছুলে ইজিবাইক চালক বাবুর গলাই ধারালো অস্ত্র ধরে সাগর। এ সময় ওমর ফারুক চালক বাবুর গায়ের গেঞ্জি খুলে তার চোখ-মুখ বেঁধে দেয়। পরে হাত-মুখ ও চোখ বাঁধা অবস্থায় বাবুকে পাশের ভুট্টাক্ষেতে ফেলে ইজিবাইক নিয়ে সটকে পড়ে যাত্রীবেশী দুই ছিনতাইকারী। দীর্ঘসময় চেষ্টার পর বাবু মুখের বাঁধন খুলে চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন গিয়ে তাকে উদ্ধার করে। ইজিবাইক চালক বাবু (৩২) চুয়াডাঙ্গা পৌর এলাকার তালতলা পুজাতলাপাড়ার সেকেন্দার আলীর ছেলে। তিনি পার্শ্ববর্তী হাজরাহাটি গ্রামের উত্তরপাড়ার শাহাগীর কবিরের ইজিবাইক ভাড়া নিয়ে চালান।

এদিকে, ইজিবাইক ছিনতাইয়ের বিষয়টি আশপাশের অন্যান্য মালিক-চালকদের জানিয়ে রাখেন শাহাগীর কবির। গত বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ছিনতাই করা ওই ইজিবাইকটি বিক্রির জন্য ঝিনাইদহের আরাপপুর বাসস্ট্যান্ড এলাকায় নিয়ে যায় ছিনতাইকারী সাগর এবং ফারুক। এ সময় তাদের কথাবার্তা সন্দেজনক হওয়ায় ইজিবাইকসহ দুজনকে আটকে রাখেন নুসরাত ইজিবাইক সার্ভিসিং সেন্টারের মালিক রবিউল ইসলাম। পরে বিষয়টি জানতে পেরে শাহাগীর কবির চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশকে অবহিত করেন। পরে রাত সাড়ে ৯টার দিকে সদর থানার এসআই মাসুম বিল্লা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঝিনাইদহের আরাপপুর বাসস্ট্যান্ড থেকে সাগর ও ফারুককে আটক করেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More