চুয়াডাঙ্গায় দূর্যোগ আশ্রয় কেন্দ্র দুটি প্রস্তুত রাখার নির্দেশ 

স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গায় জেলা দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার বেলা ১১টায় জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় ঘূর্ণিঝড় আম্পান মোকাবেলায় প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়।

জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভায় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মো. আবু তারেক, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ ইয়াহ ইয়া খান, সেনাবাহিনীর প্রতিনিধি মেজর মো. রাজীব জাহান, পৌর প্যানেল মেয়র মুন্সী রেজাউল করিম খোকন, জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোশাররফ হোসেন, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক রেজাউল ইসলাম, আনসার ও ভিডিপির জেলা অ্যাডজুটেন্ট সাইফুল ইসলাম, ব্র্যাক প্রতিনিধি ফারুক আহম্মেদ, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের উপ-সহকারী প্রকৌশলী আব্দুস সালাম, জেলা ত্রাণ ও পূনর্বাসন কর্মকর্তা খাইরুল আনাম, সহকারী কমিশনার হাবিবুর রহমান এবং বাংলাদেশ রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির প্রতিনিধি অ্যাড. রফিকুল ইসলাম সভায় উপস্থিত ছিলেন।

সভায় জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার বলেন, ঘূর্ণিঝড় আম্পান মোকাবেলায় উপকূলীয় জেলাগুলোতে ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। দূর্যোগ পরবর্তী প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। গত ১৪ মে চুয়াডাঙ্গায় ঝড় হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় পাশ দিয়ে যায় আমাদের প্রস্তুত থাকা। প্রাকৃতিকভাবে চুয়াডাঙ্গা নিরাপদ অবস্থানে আছে। এখানে শীত ও গরম বেশি। প্রাকৃতিক দূর্যোগ আশ্রয় কেন্দ্র আছে তৈরী করা। দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা ও জীবননগরে ওই দুটি আশ্রয় কেন্দ্র প্রস্তুত রাখতে চেয়ারম্যানদের নির্দেশ দেয়া হয়েছে। চুয়াডাঙ্গায় এমএ বারী মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও আলমডাঙ্গা সরকারি পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় প্রস্তুত রাখতে নির্দেশ দেয়া হয়।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More