চুয়াডাঙ্গা জেলা পরিষদ নির্বাচনে গণবিজ্ঞপ্তি জারি

১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে মনোনয়নপত্র জমা : ১৭ অক্টোবর ভোটগ্রহণ
স্টাফ রিপোর্টার: চুয়াডাঙ্গা জেলা পরিষদ নির্বাচন-২০২২’র গণবিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। গত ১ সেপ্টেম্বর জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও জেলা পরিষদ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার মোহাম্মদ আমিনুল ইসলাম খান এ গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেন। আগামী ১৭ অক্টোবর ৫৬৭ জন নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি ভোটার ইভিএম’র মাধ্যমে ভোট প্রদান করে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যানসহ ৭ জন জনপ্রতিনিধি নির্বাচিত করবেন।
গণবিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী আগামী ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে রিটার্নিং অফিসার/সহকারী রিটার্নিং অফিসারের নিকট/অনলাইনে মনোনয়নপত্র দাখিল করতে হবে। ১৮ সেপ্টেম্বর মনোনয়নপত্র বাছাই, ২৫ সেপ্টেম্বর প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন এবং ১৭ অক্টোবর সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত বিরতীহীনভাবে ইভিএম-এ ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে একজন, সদস্য পদে চারজন এবং সংরক্ষিত সদস্য (মহিলা) পদে দুইজন নির্বাচিত হবেন।
জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে প্রার্থীর জামানত ফি ২০ হাজার টাকা এবং সংরক্ষিত সদস্য বা সদস্য পদের প্রার্থীর জামানত ফি হিসেবে ৫ হাজার টাকা জমা দিতে হবে। এছাড়া, চেয়ারম্যান পদে পরিষদভুক্ত সকল ওয়ার্ড ৩৭ হাজার ৫০০ টাকা, সংরক্ষিত আসনের সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ১ (চুয়াডাঙ্গা সদর ও আলমডাঙ্গা উপজেলা) ২০ হাজার ৫০০ টাকা, সংরক্ষিত সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ২ (দামুড়হুদা ও জীবননগর উপজেলা) ১৭ হাজার টাকা, সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ১ (চুয়াডাঙ্গা সদর) ৮ হাজার ৫০০ টাকা, সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ২ ( আলমডাঙ্গা উপজেলা) ১২ হাজার টাকা, সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ৩ (দামুড়হুদা উপজেলা) ৮ হাজার ৫০০ টাকা এবং সদস্য পদে ওয়ার্ড নং ৪ (জীবননগর উপজেলা) ৮ হাজার ৫০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। জেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থীর জামানত ফি চালানের মাধ্যমে সোনালী ব্যাংকে জমা দেয়ার কোড নম্বর ‘৬/০৬০১/০০০১/৮৪৭৩’ এবং সিডিক্রয়ের টাকা জমাদানের কোড নম্বর ‘১/০৬০১/০০০১/২৬৩১’।
জেলা পরিষদ নির্বাচনে মোট ভোটার ৫৬৭ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৪৩২ জন এবং মহিলা ভোটার ১৩৫ জন। চুয়াডাঙ্গা সদর ১নং ওয়ার্ডে মোট ভোটার ১১৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৯১ জন এবং মহিলা ভোটার ২৮ জন। আলমডাঙ্গা উপজেলা ২নং ওয়ার্ডে মোট ভোটার ২১১ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১৬১ জন এবং মহিলা ভোটার ৫০ জন। দামুড়হুদা উপজেলা ৩নং ওয়ার্ডে মোট ভোটার ১১৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৮৯ জন এবং মহিলা ভোটার ২৯ জন। জীবননগর উপজেলা ৪নং ওয়ার্ডে মোট ভোটার ১১৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ৯১ জন এবং মহিলা ভোটার ২৮ জন।
চেয়ারম্যান পদে নির্বাচনী ব্যয় ৫ লাখ টাকা এবং ব্যক্তিগত ব্যয় ৫০ হাজার টাকা, সংরক্ষিত সদস্য ও সদস্য পদে নির্বাচনী ব্যয় ১ লাখ টাকা এবং ব্যক্তিগত ব্যয় ১০ হাজার টাকা করতে পারবেন। চুয়াডাঙ্গা জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী নির্বাচন কর্মকর্তা তারেক আহমেমদ জানান, নির্বাচনে এ পর্যন্ত কোনো প্রার্থী মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেনি। নির্বাচনে জামানত চেয়ারম্যান পদে ২০ হাজার টাকা এবং সংরক্ষিত সদস্য ও সদস্য পদে ৫ হাজার টাকা জামানত ফি নির্ধারণ করা হয়েছে। তবে, সিডি ক্রয়ে নির্বাচন কমিশন ফি কম-বেশি করবে বলে জানা গেছে।
প্রসঙ্গত : চুয়াডাঙ্গা জেলার চার উপজেলার ৩৯টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, সংরক্ষিত মেম্বার ও সাধারণ মেম্বার, চার পৌরসভার মেয়র, সংরক্ষিত কাউন্সিলর ও কাউন্সিলরবৃন্দ এবং চার উপজেলা পরিষদের নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও ভাইস চেয়ারম্যানগণ ভোটার হিসেবে বিবেচিত হবেন।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More