ক্ষতিগ্রস্ত কমলা চাষির নালিশ : দোষিদের শাস্তি দাবি

চায়না কমলার আবাদ আমাদের দেশে লাভজনক বলে ইউটিউবে প্রচারণা
স্টাফ রিপোর্টার: চায়না কমলা লেবুর আবাদ আমাদের দেশে লাভজনক বলে প্রচারণায় পড়ে বহু চাষি প্রতারিত হয়েছেন। এ মর্মে অভিযোগ তুলে চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা কৃষি অফিসার ও জীবননগর নিধিকু-র ওমর ফারুকের বিরুদ্ধে তদন্তপূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানানো হয়েছে।
যশোর চৌগাছার রামকৃষ্ণপুরের মেহেদী হাসান রোমেল প্রধানমন্ত্রী বরাবর লিখিত অভিযোগপত্রে বলেছেন, ইউটিউব চ্যানেলে প্রচার শুনে উদ্বুদ্ধ হয়ে ধার কর্য করে নিজে চায়না কমলা লেবুর আবাদ করে এখন সর্বশান্ত হয়েছি। প্রচারণায় চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা কৃষি অফিসার বলেছিলেন দু আড়াই বছরে প্রতিটা গাছে ১ মনের বেশি লেবু ধরবে। টক অল্প হলেও মিষ্টি হবে বেশি। এ কথা শুনে তারই দেয়া তথ্যমতে জীবননগরের নিধিকু-র ওমর ফারুকের নিকট থেকে চারা নিয়ে আবাদ করে গত কয়েক বছরে সর্বশান্ত হতে হয়েছে। শুধু তিনি একই প্রতারিত হননি। যশোরের আলমগীর হোসেন, নূর হোসেন, চৌগাছা শিশুতলার রবি, কালীগঞ্জ দাতপুরের আসাদ শেখ, দামুগহুদার সাহেব ফড়িংসহ অনেকেই ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন বলে দাবি করে ক্ষতিগ্রস্থদের নামের তালিকাসহ তাদের সেলফোন নম্বরও দেয়া হয়েছে। বলা হয়েছে, ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে মিথ্যা প্রচার করে দেশের বহু আবাদি জমি বিনষ্ট করেছে। সুষ্ঠু তদন্ত করলে আরও বহু চাঞ্চল্যকর তথ্য বেরিয়ে আসবে বলেও অভিযোগকারী অভিমত দিয়েছেন।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More