চুয়াডাঙ্গা জেলা থ্রি হুইলার অটো-ট্যাম্পু মালিক সমিতির ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন

নাসির সভাপতি জামাল সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত

দর্শনা অফিস: চুয়াডাঙ্গা জেলা থ্রি হুইলার অটো-ট্যাম্পু মালিক সমিতির ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে সম্পন্ন হয়েছে। এ নির্বাচনে সভাপতি পদে নাসির উদ্দিন নির্বাচিত হলেও সাধারণ সম্পাদক পদে জামাল উদ্দিন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। গোপন ব্যালোটের মাধ্যমে এ ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে গতকাল মঙ্গলবার দর্শনা আলহেরা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে। সকাল ৯ টা থেকে বিরতিহীনভাবে বিকেল ৩টা পর্যন্ত ১শ জন ভোটারের মধ্যে ৯৪ জন ভোটার গোপন ব্যালোটের মাধ্যমে একটি বুথে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন। জেলা থ্রি হুইলার মালিক সমিতির ৯টি পদের মধ্যে ৫টি পদে কোনো প্রতিদ্বন্দ্বি না থাকায় বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছে। বাকী ৪টি পদের বিপরীতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। সাধারণ সম্পাদক পদে জামাল উদ্দিন, সহসম্পাদক লালন হোসেন, কোষাধ্যক্ষ বাপ্পি হোসেন, দফতর সম্পাদক মহিদুল ইসলাম ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে শাহবুল হোসেন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। ভোট যুদ্ধে অংশ নিয়ে সভাপতি পদে নাসির উদ্দিন (সিএনজি) প্রতীকে ৫২ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বি লাল্টু রহমান (বাই-সাইকেল) প্রতীকে পেয়েছেন ৪০ ভোট। সহ-সভাপতি পদে সাজাহান আলী খোকন (আনারস) প্রতীকে ৭৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বি মিলন হোসেন (হারিকেন) প্রতীকে ৪০ ভোট পেয়েছেন। সাংগঠনিক সম্পাদক পদে সিরাজুল ইসলাম (ফুটবল) প্রতীকে ৬৭ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বি ইয়াকুব আলী (গোলাপফুল) প্রতীকে পেয়েছেন ২৫ ভোট। প্রচার সম্পাদক পদে হাতপাখা প্রতীক নিয়ে ৪৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন লিটন হোসেন। তার একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বি সাজাহান আলী (বালতি) প্রতীকে পেয়েছেন ৪৪ ভোট। পোল হওয়া ৯৪ ভোটের মধ্যে বাতিল হয়েছে ২ ভোট। এবারের নির্বাচনে নির্বাচন পরিচালনা পর্ষদের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন জয়নাল আবেদীন নফর, সদস্য পৌর কাউন্সিলর সাহিকুল আলম অপু ও দর্শনা রিকশা শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক রমজান আলী। প্রিজাইটিং অফিসারের দায়িত্বে ছিলেন আলহেরা মাধ্যমিক বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি আ. কুদ্দুস, পোলিং অফিসার বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আ. হান্নান ও বাসস্ট্যান্ড জামে মসজিদের পেশ ইমাম উসমান গনি। সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন ফরহাদুল আলম।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More