করোনা আতঙ্ক: ফুটবল খেলতে না চাইলে জরিমানা গুনতে হবে

মাথাভাঙ্গা অনলাইন: করোনার কারণে থমকে গেছে বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গন। তাই সদস্য দেশগুলোর ক্ষতি পুষিয়ে নিতে এরই মধ্যে প্রণোদনার ঘোষণা দিয়েছে ফিফা। এদিকে করোনায় সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ফুটবল ক্লাবগুলো। তাই করোনার ঝুঁকি কাটতে না কাটতেই আগামী জুনে ফুটবল ফেরানোর কথা ভাবছে লা লিগা কর্তৃপক্ষ। মে মাসের প্রথম সপ্তাহ নাগাদ অনুশীলন শুরুর ঘোষণা দিতে চায় লা লিগা কর্তৃপক্ষ। তবে অনুশীলন শুরুর আগে লা লিগার সকল ফুটবলার এবং কোচিং স্টাফের করোনা পরীক্ষা করোনা হবে। এরপর লিগ শুরুর ঘোষণা আসার পরে যদি কোন ক্লাব খেলতে রাজী না হয় তবে তাদের শাস্তি দেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন লা লিগার সভাপতি জাভিয়ের তেবাজ। কারণ লিগ শুরু করতে না পারলে ক্লাবগুলো বড় ক্ষতির মুখে পড়বে। দর্শক শূন্য মাঠে ফুটবল গড়ালেও ক্ষতি বেশ কমবে। তেবাজ বলেন, ‘আমরা হিসেব করে দেখেছি, যদি লিগ শুরু করতে না পারি আমাদের এক বিলিয়ন ইউরো লোকসান হবে। দর্শক শূন্য মাঠে ম্যাচ হলে ক্ষতির পরিমাণ কমে দাঁড়াবে তিনশ’ মিলিয়নে।’ তিনি জানান, লিগ শুরু করতে সব ক্লাবকে একসঙ্গে কাজ করতে হবে। যদি কোন ক্লাব স্বাস্থ্য বিধি না মানে এবং কেউ আক্রান্ত হয়। তাহলে তার প্রভাব সব দলের ওপর পড়বে। তার মতে, জুনে ফুটবল শুরু করা গেলে অন্তত ১ জুলাই পর্যন্ত নির্বিঘ্নে লিগ চালিয়ে যাওয়া সম্ভব। এরপর চ্যাম্পিয়নস লিগ, ইউরোপের মতো আসরের খেলা শুরু হতে পারে। তবে প্রয়োজন পড়লে জুলাইয়েও লিগ বর্ধিত করা সম্ভব বলে মনে করেন তিনি।

 

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More