আদমজী ইপিজেডে গ্যাসপাইপ ফেটে ভয়াবহ আগুন

স্টাফ রিপোর্টার: সিদ্ধিরগঞ্জের আদমজী ইপিজেডের অভ্যন্তরে একটি নির্মাণাধীন ভবনের খালি প্লটে পাইলিং করার সময় তিতাস গ্যাসের ২০ ইঞ্চি ব্যাসার্ধের পাইপ ফেটে ভয়াবহ অগ্নিকা- ঘটেছে। খবর পেয়ে নারায়ণগঞ্জ ও ঢাকার ফায়ার সার্ভিসের নয়টি ইউনিটের কর্মীরা সাড়ে ছয় ঘণ্টা চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হন। গতকাল সকাল ১০টায় অগ্নিকা- ঘটে। এরপর নারায়ণগঞ্জ শহর ও সিদ্ধিরগঞ্জের বিভিন্ন এলাকার গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করে দেয়া হয়। এ ঘটনায় ইপিজেড এলাকায় ও সিদ্ধিরগঞ্জ ২১০ মেগাওয়াট তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। ফায়ার সার্ভিস ও আদমজী ইপিজেড কর্তৃপক্ষ জানায়, গতকাল সকাল সাড়ে ৭টায় ইপিজেডের অভ্যন্তরে পলমল গ্রুপের হামজা ফ্যাশনের খালি প্লটের নিচে পাইলিং করার সময় তিতাস গ্যাসের পাইপ ফেটে যায়। ১০টার দিকে ওই পাইপে আগুন ধরে যায়। খবর পেয়ে আদমজী, মলপাড়া, হাজীগঞ্জ, ঢাকাসহ বিভিন্ন ফায়ার সার্ভিসের নয়টি ইউনিটের কর্মীরা ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করেন। তারা ভাগ হয়ে আদমজী ইপিজেড ও তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ভিতর থেকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করেন। বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। সাড়ে ৫টায় ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের নারায়ণগঞ্জ অফিসের উপসহকারী পরিচালক আব্দুল্লাহ আল আরেফিন জানান, এখন ড্যাম্পিংয়ের কাজ চলছে। গ্যাসপাইপ ফেটে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আগুন লাগেনি।

সকাল ১০টার দিকে আগুন লাগে। মনে হয় স্পার্ক থেকেই আগুন লাগে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আগুনের লেলিহান শিখা ও কালো ধোঁয়া ৩০-৪০ ফুট ওপরে উঠে যায়। ১ থেকে ৩ কিলোমিটার দূর থেকেও আগুন দেখা যায়। আগুন লাগায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে আশপাশ এলাকায়ও। দুপুরে সিদ্ধিরগঞ্জ তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ভিতর দিয়ে গিয়ে দাউদাউ আগুন জ্বলতে দেখা গেছে।

আদমজী ইপিজেডের নির্বাহী পরিচালক আহসান কবির বলেন, ‘আমরা পলমল গ্রুপের হামজা ফ্যাশন নামের একটি ইউনিটকে সাতটি প্লট দিয়েছি। ২০ ফুট মাটির নিচে গ্যাসলাইনের পাইপ ছিল। আজ (শুক্রবার) খালি প্লটের পাইলিংয়ের কাজ করতে গিয়ে সেই গ্যাসলাইনে আগুন লেগে যায়। সকাল ৭টায় গ্যাসলাইন ফেটে গিয়ে গ্যাস বের হতে থাকে। তবে আগুন লাগে বেলা ১১টায়। খোলা মাঠে আগুন লাগায় এবং কাছাকাছি কোনো ফ্যাক্টরি না থাকায় কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।’

তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানির নারায়ণগঞ্জ অফিসের ব্যবস্থাপনা প্রকৌশলী সাকির আহমেদ বলেন, ‘অগ্নিকান্ডের কারণে নারায়ণগঞ্জ ও সিদ্ধিরগঞ্জের বিভিন্ন স্থানে গ্যাস সরবরাহ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। মেরামত কাজ শেষে সরবরাহ চালু করা হবে।’

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More