ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ও মহেশপুরসহ দেশের ২৯ পৌরসভায় আজ ভোটগ্রহণ

স্টাফ রিপোর্টার: পঞ্চম ধাপে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ও মহেশপুরসহ ২৯ পৌরসভায় ভোটগ্রহণ আজ। উৎসবমুখর এ নির্বাচন নিয়ে যেমন রয়েছে উত্তেজনা, তেমন শঙ্কা ভোটার ও প্রার্থীদের মধ্যে। সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলবে। এ ধাপে সব পৌরসভায় ইভিএমে হবে ভোট। বিগত চার ধাপের পৌরসভা নির্বাচনে সংঘাত-সহিংসতা হওয়ায় এ ধাপের ভোট নিয়ে উত্তেজনা রয়েছে সব নির্বাচনী এলাকায়। অনেক প্রার্থী কেন্দ্র দখলের শঙ্কাও প্রকাশ করেছেন। এছাড়া ভোটার, এজেন্ট ও প্রার্থীদের হুমকিধমকি দেয়ার অভিযোগ উঠেছে। করোনাকালে এ নির্বাচনে যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার নির্দেশনাও দিয়েছে ইসি। মেয়র পদে দলীয় প্রতীকে ভোট হলেও বিদ্রোহী এবং কাউন্সিলর প্রার্থীদের মধ্যে অনেক সময় সংঘাতের ঘটনা দেখা দিয়েছে। চার ধাপের ভোটে বিভিন্ন এলাকায় সহিংসতা-গোলযোগের ঘটনা ঘটেছে। পঞ্চম ধাপে সংঘাত-সহিংসতা হবে না বলে মনে করছেন নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার। গতকাল শনিবার বিকালে নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের ইসি সচিব বলেন, যেখানেই কোনো ধরনের সমস্যা হচ্ছে, সেখানেই ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। নির্বাচনে সহিংসতায় মারা যাওয়া, অবশ্যই দুঃখজনক। সচিব বলেন, আজ ২৯টি পৌরসভায় সাধারণ ও চারটি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এসব নির্বাচনের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বজায় রাখার জন্য সব ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। আমরা আশা করি একটা ফেয়ার, অংশগ্রহণমূলক এবং উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।
যে ২৯ পৌরসভায় ভোট : পঞ্চম ধাপে ভোটগ্রহণ হবে চট্টগ্রামের মিরসরাই, বারইয়ারহাট ও রাঙ্গগুনিয়া, লক্ষ্মীপুরের রায়পুর, চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোল, হবিগঞ্জ সদর, জামালপুর সদর, মাদারগঞ্জ ও ইসলামপুর, রাজশাহীর দুর্গাপুর ও চারঘাট, বগুড়া সদর, মানিকগঞ্জের সিঙ্গাইর, কিশোরগঞ্জের ভৈরব, ভোলার সদর ও চরফ্যাশন, চাঁদপুরের শাহরাস্তি ও মতলব, যশোরের কেশবপুর, নীলফামারীর সৈয়দপুর, মাদারীপুর সদর ও শিবচর, রংপুরের হারাগাছ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর, ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ও মহেশপুর, জয়পুরহাট সদর, ময়মনসিংহের নান্দাইল ও গাজীপুরের কালীগঞ্জ পৌরসভায়।
কালীগঞ্জ প্রতিনিধি জানিয়েছেন, ঝিনাইদহে কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে নির্বাচনী সরঞ্জাম। গতকাল শনিবার দুপুরের পর থেকে শৈলকুপা উপজেলা চেয়ারম্যান পদে উপ-নির্বাচন, হাবিবপুর ৮ নম্বর ওয়ার্ডে কাউন্সিল পদে উপ-নির্বাচন এবং কালীগঞ্জ, মহেশপুর পৌরসভায় নির্বাচনের দ্বায়িত্বে থাকা প্রিজাইডিং অফিসারদের কাছে উপকরণ বুঝিয়ে দেয়া হয়েছে। রবিবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত শৈলকুপায় ব্যালেটের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়াও কালীগঞ্জ ও মহেশপুর পৌরসভায় ইভিএম’র মাধ্যমে ভোটগ্রহণ হবে। জেলা নির্বাচন অফিসার জানান, শৈলকুপা উপজেলা চেয়ারম্যান পদের উপ-নির্বাচনে ৩ জন, কালীগঞ্জ ৪ জন ও মহেশপুর পৌরসভায় মেয়র পদে মোট ৮ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু করতে এবং আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে ম্যাজিস্ট্রেট, পুলিশ, র‌্যাব ও বিজিবি মোতায়েন থাকবে। শৈলকুপায় ১৪টি ইউনিয়নের ১২০টি কেন্দ্রে ২ লাখ ৮৮ হাজার ২’শ ৫৪ জন ভোটার ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও একজন স্বতন্ত্র প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। কালীগঞ্জ পৌরসভায় মোট ভোটার ৪০ হাজার ৫’শ ৭৭ জন। ৯ টি ওয়ার্ডের ২১ টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়াও,মহেশপুর পৌরসভার মোট ভোটার ২২ হাজার ৪’শ ৫০ জন। এ পৌরসভায় ৯টি ওয়ার্ডের ১১টি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ হবে। এ নির্বাচনের ব্যাপারে ঝিনাইদহ জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ জানান, নির্বাচনের আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৎপর রয়েছে। যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবিলা করতে তারা প্রস্তুত রয়েছে।

এছাড়া, আরও পড়ুনঃ

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More